ঢাকা, মঙ্গলবার 24 April 2018, ১১ বৈশাখ ১৪২৫, ৭ শাবান ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

ছড়া / কবিতা

বৈশাখী ঝড়
তাসলিমা কবির

পোহালো কি রাত আলোক প্রভাত
নাকি এলো কোনো ঝড়
কালো ফাল্গুন ঝলকানি দিলো
হতে ভেসে যাওয়া খড়।
বাঙালির দামে বিকিয়ে দেবো কি
শাশ্বত পরিচয়
শোভা যাত্রার এই উৎসবে
চেতনার পরাজয়।

নববর্ষের আগমন হয়
নিয়ে প্রত্যাশা প্রীতি
লাঞ্ছনা ভয় ভেঙে দেয় তার
ধীরে ধীরে গড়া কৃতী।
পানতা-ইলিশে মাতোয়ারা হয়ে
হারিয়েছে সম্ভ্রম
কলঙ্কিত এ উৎসবের
বেড়েই চলেছে ক্রম।

পুন্যাহ আর হালখাতা চলে
পুরোনো হিসেব কত
জীবনের দামে নতুন পাতার
বাকি থেকে যায় শত।
লাল-সাদা শাড়ি, তবলা ঢোলের
ভাগিদার নই আমি
প্যাঁচার মুখোশে নেই প্রয়োজন
হয়েছি কতটা দামি।

স্রোতের এ ধারা ভাসিয়ে নিয়েছে
যারাই দিয়েছে পা
এ ভুলের কাছে আজও লেখা আছে
কেউ ক্ষমা পায় না।

ভাসবো না আমি আমার তো আছে
মজবুত এক ভেলা
নোঙর বেঁধেছি তার সাথে আমি
আর নয় মিছে খেলা।
সমস্ত দিন কল্যাণ আমার
আনন্দ উৎসব
তাসবি দিয়ে আমার প্রভাত
শান্তি কলরব। 


স্বাধীনতার চেতনা
নুরে আম্বিয়া পারিজা

স্বাধীনতার চেতনা খুঁজি আমি
সন্তান হারানো মায়ের কাছে
হৃদয়ের রক্ত ক্ষরণ থামাতে পারেনা
তবুও বেচেঁ থাকে স্বাধীন দেশে

স্বাধীনতার চেতনা খুঁজি আমি
পথে প্রান্তরে পড়ে লাশের
থাকা পাশে অন্যায় করেনি তবুও
ছিন্নভিন্ন দেহ লুটিয়ে মাটিতে
স্বাধীনতার চেতনা খুঁজি আমি
তনু, আফসানা দের চোখে
কি দোষে হয়ে ছিলো তারা ধর্ষিত
মুক্ত স্বাধীন দেশে

স্বাধীনতার চেতনা খুঁজি আমি
নৈতিকতা বিহীন শিক্ষাব্যবস্থায়
নকল যুক্ত পরিবেশ
জাতি ধ্বংসের অন্যতম উপায়

স্বাধীনতার চেতনা খুঁজি আমি
অধিকার বঞ্চিত মানুষের কাছে
সব অবিচার নির্যাতন সহ্য করে
পারবেনা সংগ্রাম করতে

স্বাধীনতার চেতনা খুঁজি আমি
সেসব স্বাধীনচেতা মানুষের মাঝে
যারা স্বাধীনতার নামে সমাজটাকে
বেধেছে পরাধীনতার শিকলে

প্রকৃত স্বাধীনতার চেতনা হল
দেশকে রক্ষা
অন্যায় প্রতিরোধ করা,
হাতে হাত রেখে দেশ কে গড়া
মোদের হবে এই শ্লোগান
তবেই হবে চেতনার উন্মোচন

কোটার আগুন
তাসলিমা কবির

কোটা প্রথার চাই অবসান
দিতে হবে মেধার দাম
স্বীকৃতিহীন অভাগারা
পশুর দলে লেখায় নাম।

যখম হয়ে রাস্তা-ঘাটে
হারাচ্ছে চোখ, পা ও হাত
চেতন হারা কারো আবার
পথের পাশে কাটছে রাত।

পড়ার টেবিল ছেড়ে ওরা
পড়লো নেমে রাস্তাতে
তাদের দাবী চিবিয়ে খায়
আড়ালে কেউ নাস্তাতে।

নির্ভেজাল এক স্বপ্ন নিয়ে
করলো যারা পড়া শেষ
সোনার বাংলা বুকে ধরে
হাতে হাতে গড়বে দেশ।

পঙ্গু করে দিচ্ছে তাদের
নিচ্ছে কেড়ে অধিকার
রাঘব বোয়াল দস্যুরা আজ
গলা কাটে স্বাধিকার।

রাজপথে খায় রক্তচুষে
পিশাচ এরা ঘৃণ্য-কীট
কলম ছেড়ে আজকে হাতে
উঠলো পাথর টুকরো ইট।

কোটার আগুন তীব্র ভীষণ
জ্বলছে স্বদেশ, প্রজন্ম
জানি না এর শেষটা কোথায়
পুড়বো না কি আজন্ম।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ