ঢাকা, মঙ্গলবার 8 May 2018, ২৫ বৈশাখ ১৪২৫, ২১ শাবান ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

একটি কাঁচা সড়ক দুই উপজেলার মানুষের দুর্ভোগ

শ্রীনগর (মুন্সীগঞ্জ) সংবাদদাতা: শ্রীনগর-সিরাজদিখান দুই উপজেলার সংযোগকারী কাচা সড়ক না হওয়ায় দুই উপজেলার বাসিন্দারা দুর্ভোগে রয়েছেন। সিরাজদিখান  উপজেলার কোলা ইউনিয়নের নন্দনকোনা গ্রাম এবং শ্রীনগর উপজেলার বীরতারা ইউনিয়নের নিমতলী গ্রামের বাসিন্দাদের প্রায় ৪০ বছরের দাবি নিমতলী-নন্দনকোনা পর্যন্ত একটি সড়কের জন্য। জনপ্রতিনিধিরা বিভিন্ন সময়ে প্রতিশ্রুতি দিলেও প্রায় ৪০ বছরের এখান দিয়ে একটি কাঁচা সড়ক নির্মিত হয়নি। অথচ ভোট এলে নেতারা এলাকায় আসেন। ভোটারদের দেন নানা ধরনে প্রতিশ্রুতি। ভোট শেষ হলে কেউ এম পি, উপজেলা চেয়ারম্যান, ইউপি চেয়ারম্যান, মেম্বার হন। পরে আর তারা খোজ নেন না এমনটাই অভিযোগ নিমতলী ও নন্দনকোন গ্রামের প্রায় ৬ হাজার বাসীন্দার। উপজেলা সদর থেকে মাত্র ৪ কিলো মিটার দুরত্ব বীরতারার মূল সড়ক। সড়কটির সংযোগ থেকে প্রায় ২৭/২৮ শত ফুট দুরেই নিমতলী গ্রাম। অথচ মাত্র ১৩ শত ফুট দৈঘ্য ও ১০/১২ ফুট প্রস্থের একটি সরকারী রেকডিয় সড়ক থাকলেও বাস্তবে তার কোন মিল নেই। নিমতলী থেকে নন্দনকোনা পর্যন্ত রেকডিয় সড়কটি মাটি ভরাট করে নির্মাণ করা হলে উপজেলা সদরের সঙ্গে অন্তত ৪/৫ কিলোমিটার দূরত্ব কমে আসতো। গ্রামবাসীরা জানায়, উপজেলার এত কাছে থেকেও তারা অবহেলিত। সড়কটি বাস্তবায়ন না হওয়ায় এলাকাবাসী চরমভোগান্তির শিকার হচ্ছেন। বর্ষা মৌসুমে নৌকাই এখান কার মানুষের এক মাত্র মাধ্যম।বিশেষ করে প্রসূতি মা, শিশু, ও বৃদ্ধদেরও স্বাস্থ্যকেন্দ্র নিতে সব চেয়ে বেশি দূর্ভোগ পোহাতে হয়। এছারা স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসার কয়েক শত ছাত্র-ছাত্রীর চরম দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। বিভাগীয় শহর ঢাকা সহ জেলা, উপজেলায় কর্মরত ব্যক্তিদের পড়তে হচ্ছে নানা ধরনের সমস্যায়। বর্ষা মৌসুমে ছোট ছোট শিক্ষার্থীরা জীবনের ঝুকি নিয়ে নৌকায় পারাপার হয়ে থাকে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ