ঢাকা, মঙ্গলবার 8 May 2018, ২৫ বৈশাখ ১৪২৫, ২১ শাবান ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

চৌগাছায় ক্যান্সার আক্রান্ত প্রাথমিক শিক্ষিকা সাগরিকা

চৌগাছা (যশোর) সংবাদদাতা: যশোরের চৌগাছার খড়িঞ্চা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা সাগরিকা খাতুন (২৫) মরণব্যাধী ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর প্রহর গুনছেন। সাগরিকা উপজেলার চাঁদপাড়া গ্রামের কৃষক নাজিম উদ্দিন ও মা রাশিদা বেগমের একমাত্র মেয়ে। প্রখর মেধাবী সাগরিকা লেখাপড়া শেষ করে ২০১৭ সালের শেষের দিকে সরকারি প্রাইমারী স্কুলের সহকারী শিক্ষিকা পদে চাকুরী পান। গরীব পিতার সংসারে ফিরে আসে সুখের সুবাতাস। কিন্তু হঠাৎ এক কালো মেঘে তাদের সেই সব সুখ ভেঙ্গে চুরমার হয়ে গেছে। চলতি বছরের প্রথম দিকে সগরিকার শরীরে ধরা পড়ে মরণব্যাধী ক্যান্সার। গোটা পরিবারে নেমে আসে এক ধরনের স্তব্ধতা। সন্তানকে সুস্থ করে তুলতে কৃষক পিতা সব ধরনের চেষ্টা করেছেন। নিয়েছেন ভারতের ভেলোর সিএমসিতে। সেখান থেকে সাগরিকাকে ফেরত দেয়া হয়েছে। এর আগে ভারতে নেয়ার আগে দৈনিক প্রতিদিনের কথাসহ স্থানীয় ও জাতীয় পত্রিকায় সাগরিকার অসুস্থতার সংবাদ প্রকাশ হলে ব্যপক সাড়া পড়ে।
সাগরিকার চাচা চৌগাছা মৃধাপাড়া মহিলা কলেজের প্রভাষক অমেদুল ইসলাম জানান, শারীরিক অসুস্থতা বোধ করলে তাকে প্রথমে যশোরে চিকিৎসা করা হয়। এরপর নেয়া হয় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। সেখানে তার পাকস্থলীতে অপারেশন করেন চিকিৎসকরা। অবস্থার কোন উন্নতি না হওয়ায় চিকিৎসকরা তাকে ভারতে নেয়ার পরামর্শ দেন। এপ্রিল মাসের ২১ তারিখে উন্নত চিকিৎসার জন্য সাগরিকাকে নিয়ে যাওয়া হয় ভারতের ভেলোরে। সেখানে পরীক্ষা নিরিক্ষা করে চিকিৎসকরা তাকে দেশে ফেরত পাঠিয়ে দেন। ক্যান্সার মারাত্মক আকার ধারন করায় ভারতের চিকিৎসকরা এই পরামর্শ দেন বলে তিনি জানান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ