ঢাকা, রোববার 13 May 2018, ৩০ বৈশাখ ১৪২৫, ২৬ শাবান ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

খেলাফত আন্দোলনের ৩০০ আসনে প্রার্থী দেয়ার প্রস্তুতি

বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের কেন্দ্রীয় মজলিশে উমূমির সদস্য (সাধারণ পরিষদের) সম্মেলন গতকাল শনিবার, সকাল ১১ টায় মারকাযুল খেলাফত কামরাঙ্গীরচর মাদরাসায় অনুষ্ঠিত হয়। এতে বর্তমান প্রেক্ষাপট এবং একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রস্তুতি ও প্রার্থী বাছাইসহ গুরুত্তপূর্ণ বিষয়সমূহ নিয়ে আলোচনা করা হয়। দলের আমীরে শরীয়ত মাওলানা শাহ আতাউল্লাহ ইবনে হাফেজ্জী হুজুর-এর সভাপতিত্বে বিভিন্ন জেলা ও আসন থেকে আগত  সদস্যদের উপস্থিতিতে অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন দলের মহাসচিব মাওলানা হাবিবুল্লাহ মিয়াযী, নায়েবে আমীর মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদী, আব্দুল মালেক চৌধুরী, হাজি জালাল উদ্দিন বকুল, মুফতি সুলতান মহিউদ্দিন, মাওলানা আনোয়ারুল্লাহ ভূঁইয়া, মাওলানা সানাউল্লাহ, মাওলানা ইসহাক নগরী, মাওলানা হাফিজুর রহমান সরদার, মাওলানা হেদায়াতুল্লাহ বাশার, মাওলানা ইলিয়াস মাদারীপুরী, মাওলানা ফখরুল ইসলাম, মাওলানা সাইফুল ইসলাম সুনামগঞ্জী, মাওলানা আব্দুল লতিফ সিরাজী, মাওলানা সানাউল্লাহ ফিরোজ, বিন কাশেম চৌধুরী, মাওলানা হেলাল উদ্দিন, মাওলানা আব্দুল মান্নান, মুফতি নাঈমুল হাসান, মহিউল ইসলাম চৌধুরী, কারী মাসুদুল হক ও মৌলভী আব্দুর রাকিব প্রমূখ
সভাপতির বক্তব্যে মাওলানা শাহ আতাউল্লাহ সকল দলের অংশগ্রহণে সুষ্ঠু ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচনের পরিবেশ সৃষ্টির জন্য ইসির প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, জামানতের টাকাসহ নির্বাচনী ব্যয়ের বৈধ সীমা ক্রমাগত বেড়ে চলায় সৎ যোগ্য আদর্শবান সাধারন নাগরিকগণ সংসদ সদস্য হওয়ার সুযোগ থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। অতএব যোগ্যলোকদের নির্বাচিত করতে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রার্থীর জামানত ১০ হাজার টাকার মধ্যে রেখে ভোটার তালিকা সম্বলিত সিডি প্রার্থীকে বিনামূল্যে প্রদান করতে হবে যাতে নির্বিঘ্নে ও সহজে সবাই মনোনয়নপত্র সংগ্রহ ও জমা দিতে পারেন। এবং নির্বাচনী ব্যয় কমিয়ে ১০ লাখ টাকার মধ্যে আনতে হবে। কালোটাকার মালিক, অবৈধ সম্পদকে বৈধকারীদের নির্বাচনে অযোগ্য ঘোষণা করতে হবে। প্রেসবিজ্ঞপ্তি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ