ঢাকা, রোববার 13 May 2018, ৩০ বৈশাখ ১৪২৫, ২৬ শাবান ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

আমতলীতে ভুয়া দাতা সেজে জমি রেজিস্ট্রি করতে এসে গ্রেফতার -২

আমতলী (বরগুনা) সংবাদদাতা: বরগুনার আমতলীতে ভয়া দাতা সেজে জমি রেজিষ্ট্রি করতে এসে গ্রেফতার হয়েছেন দুই জন।
এ ঘটনায় আমতলী উপজেলা সাবরেজিষ্ট্রার মো. মাসুম বাদী হয়ে ৫ জন কে আসামী করে আমতলী থানায় মঙ্গলবার রাতে মামলা দায়ের করেছেন।
মামলা সূত্রে জানা যায়, বরগুনা জেলার আমতলী উপজেলার উত্তর টিয়াখালী গ্রামের তারা গাজী ও আলেয়া বেগমের ছেলে রফিক গাজী সে মানষিক প্রতিবন্ধী। এমতাবস্থায় গত মঙ্গলবার উক্ত রফিক গাজী সেজে জাল জালিয়াতির মাধ্যমে তার নামের সম্পত্তি সাব-কবলা দলিল রেজিষ্ট্রি করে দিতে আসেন  প্রতিবন্ধী রফিক মিয়ার ভাইয়ের ছেলে   মোঃ রাকিব রানা।
রেজিষ্ট্রেশন আইনের ৩৪ ধারা অনুযায়ী মামলার বাদী আমতলী উপজেলা সাবরেজিষ্ট্রার মোঃ মাসুম দাতাদের পরিচয় সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়ার জন্য জিজ্ঞাসাবাদকালে মোঃ রাকিব রানার জালিয়াতীর বিষয়টি  ধরা পড়ে। এ সময় সাব রেজিষ্ট্রার রাকিব রানা ও দলিলের সনাক্তকারী প্রেমানন্দ দাস কে  আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেন।
এ ব্যাপারে মামলার আসামী মো. রকিব রানা  জালিয়াতীর কথা স্বীকার করে বলেন যে, উক্ত দলিলের সকল দাতা, দলিল লেখক ও দলিলের সাক্ষীরা এই জালিয়াতির ব্যাপারে অবগত এবং তাদের কথামতোই সে এই দলিলের ভুয়া দাতা সেজে এসেছে।
এ ঘটনায় মঙ্গলবার রাতে  আমতলী উপজেলা সাব রেজিষ্ট্রার মো. মাসুম বাদী হয়ে দলিল লেখকসহ ৫ জনকে আসামী করে আমতলী থানায় মামলা দায়ের করেছেন।
আসামীরা হলেন মোঃ রকিব রানা (২৮), প্রেমানন্দ দাস (৪৫), হরিন্দ্রনাথ দাস (৪৮), সেরাজুল ইসলাম (৫৫) ও দলিল লেখক মো. হারুন অর রশিদ খান (৬৪)। আমতলী থানার ওসি সহিদ উল্ল্যাহ বলেন, গ্রেফতারকৃত আসামীদের আমতলী সিনিয়র জুডিশিয়াল কোর্টের মাধ্যমে  বরগুনা জেল জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ