ঢাকা, মঙ্গলবার 15 May 2018, ১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫, ২৮ শাবান ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

মাদারীপুরে হত্যা মামলায় ৪ জনের ফাঁসির আদেশ

মাদারীপুর সংবাদদাতা: জেলার শিবচরে জমি আত্মসাতের উদ্দেশ্যে সোহেল মল্লিক (২৪) নামে এক যুবক হত্যা মামলার রায়ে ভাই ও আপন তিন মামাসহ ৪জনের ফাঁসির আদেশ দিয়েছে আদালত। গতকাল সোমবার দুপুরে মাদারীপুর জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. শরীফউদ্দিন আহম্মেদ ফাঁসিতে ঝুলিয়ে এই চারজনের মৃত্যুদন্ডের রায় দেন। দন্ডপ্রাপ্তরা হলো-নিহত সোহেল মল্লিকের মা হেলেনা আক্তারের দ্বিতীয় পক্ষের ছেলে নিহত সোহেলের সৎ ভাই আলামিন খাঁ (১৭) ও সোহেলের আপন তিন মামা শাহিন হাওলাদার (২৮), মিজানুর রহমান হাওলাদার (৩২) ও আব্দুল খালেক হাওলাদার (৪২)।
মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণে জানা গেছে, জমি আত্মসাতের উদ্দেশ্যে ২০১৩ সালের ৮ আগস্ট রাতে শিবচর উপজেলার যাদুয়ারচর গ্রামের বাড়িতে ঘুমন্ত অবস্থায় সোহেল মল্লিককে হত্যা করেন দন্ডপ্রাপ্ত আসামীরা। এই ঘটনায় শিবচর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন সোহেলের বাবা সিদ্দিক মল্লিক। পরে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই তৈয়বুর রহমান দীর্ঘ তদন্ত শেষে ৪জনের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। উপযুক্ত সাক্ষ্য প্রমাণের ভিত্তিতে আদালত সোমবার ৪ জনের ফাঁসির আদেশ দেন। মামলার পর থেকে আসামীরা পলাতক রয়েছে। এদিকে দ্রুত আসামীদের গ্রেফতার করে এ রায় কার্যকরের দাবি জানিয়েছেন বাদীপক্ষ।
নিহত সোহেল মল্লিকের মা বাংলাদেশ মহিলা আওয়ামী লীগ ঢাকা মহানগর দক্ষিণ শাখার সিনিয়র সহ-সভাপতি হেলেনা আক্তার বলেন, ‘আমার এক ছেলে হত্যা মামলায় অন্য ছেলের ফাঁসির আদেশ হয়েছে। আমি আজ দুই ছেলেকেই হারালাম। সাথে আপন তিন ভাইয়েরও ফাঁসির আদেশ হয়েছে। তবুও আমি খুশি, কারণ হত্যাকারীর ফাঁসির আদেশ হয়েছে, আমার খুন হওয়া ছেলে ন্যায়বিচার পেয়েছে।’
মামলার রায়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করে মামলার বাদী সিদ্দিক মল্লিক বলেন, ‘মামলার রায় যাতে দ্রুত কার্যকর করা হয় সে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য সরকারের কাছে দাবী জানাই।’
মাদারীপুরে জেলা ও দায়রা জজ আদালতের পিপি মো. এমরান লতিফ বলেন, ‘বিজ্ঞ আদালত সাক্ষ্য প্রমাণের ভিত্তিতে ৪ জনের ফাঁসির আদেশ দিয়েছেন। এদিকে দন্ডপ্রাপ্তরা পলাতক রয়েছে।’

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ