ঢাকা, শুক্রবার 22 June 2018, ৮ আষাঢ় ১৪২৫, ৭ শাওয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

সড়ক দুর্ঘটনায় সাতজন নিহত আহত ২০

 

সংগ্রাম ডেস্ক : তিনটি সড়ক দুর্ঘটনায় গতকাল সাতজন নিহত ও ২০ জন আহত হয়েছেন। এর মধ্যে খুলনায় একটি যাত্রীবাহী বাস খাদে পড়ে পাঁচজন নিহত ও ২০ জন আহত হয়েছেন। অপর দু’টি দুর্ঘটনা নাটোর ও জামালপুরে ঘটেছে। এতে নিহত হয়েছেন দু’জন।

খুলনা অফিস : খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলার বরাতিয়া এলাকায় যাত্রীবাহী একটি বাস খাদে পড়ে পাঁচজন নিহত হয়েছে।  এতে নারী ও শিশুসহ ১৫-২০জন আহত হয়েছে । গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কের ওই এলাকায় একটি বাসকে ওভারটেক করতে গিয়ে এ দুর্ঘটনাটি ঘটে।  

নিহতরা হলেন, কয়রা উপজেলার দক্ষিণ বেদকাশি ইউনিয়নের গোলখালী গ্রামের আব্দুল হামিদ গাজীর মেঝো ছেলে আব্দুর রাজ্জাক গাজী (৪০), একই উপজেলার উত্তর খেওনা গ্রামের আদিলুদ্দীন গাজীর ছেলে মোস্তফা গাজী (৫০), মেগারাইট গ্রামের শহীদ গাজীর ছেলে শরিফুল ইসলাম গাজী (৩৫), ফতেপুর গ্রামের কালা জামানের ছেলে নূর ইসলাম (৩৫) এবং বাগালী গ্রামের ছৈলুদ্দিন গাজীর ছেলে আবু তালেব গাজী (৪০)।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, দুপুর পৌণে একটার দিকে বাসটি (সাতক্ষীরা-জ ১৪-০০৮৮) অতিরিক্ত যাত্রী নিয়ে পাইকগাছা থেকে খুলনায় আসছিল। পথে খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কের ডুমুরিয়ার বরাতিয়া এলাকায় এলে একটি ট্রাককে সাইড দিতে গিয়ে খাদে পড়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই পাঁচজন মারা যায়। বাসের সকলের কমবেশী আহত হয়েছে। বাসটিতে আসা অধিকাংশ যাত্রী ছিল শ্রমিক। তারা দিনমজুর হিসেবে খুলনায় কাজ করতে আসেন।

ডুমুরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাবিল হোসেন জানান, ‘দুর্ঘটনা কবলিত বাসটি কয়রা থেকে যাত্রী নিয়ে খুলনায় আসছিল। মৌমিতা পরিবহন নামের বাসটির নম্বর সাতক্ষীরা জ ০৪-০০৮৮। বাসটি বরাতিয়া এলাকায় পৌঁছালে ব্রেক ফেল হয়। এ সময় চালক বাসটির নিয়ন্ত্রণ হারায়। ফলে বাসটি পার্শ্ববর্তী খাদে পড়ে উল্টে যায়। স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় পুলিশ দুর্ঘটনা কবলিত যাত্রীদের উদ্ধার চালায়। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স সদস্যরাও উদ্ধার কাজে অংশ নেয়।’

তিনি জানান, ঘটনাস্থল থেকে পাঁচ জনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। নিহতরা হলেন, কয়রা উপজেলার দক্ষিণ বেদকাশি ইউনিয়নের গোলখালী গ্রামের আব্দুল হামিদ গাজীর মেঝো ছেলে আব্দুর রাজ্জাক গাজী (৪০), একই উপজেলার উত্তর খেওনা গ্রামের আদিলুদ্দীন গাজীর ছেলে মোস্তফা গাজী (৫০), মেগারাইট গ্রামের শহীদ গাজীর ছেলে শরিফুল ইসলাম গাজী (৩৫), ফতেপুর গ্রামের কালা জামানের ছেলে নূর ইসলাম (৩৫) এবং বাগালী গ্রামের ছৈলুদ্দিন গাজীর ছেলে আবু তালেব গাজী (৪০)।

পুলিশের এই কর্মকর্তা আরও জানান, আহত অবস্থায় ১৫ জনকে উদ্ধার করে চুকনগর ও ডুমুরিয়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। উদ্ধারকৃত পাঁচটি লাশের অন্যগুলোর পরিচয় জানার চেষ্টা চলছে। ময়নাতদন্তের জন্য লাশগুলো খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নাটোর সংবাদদাতা : নাটোরের গুরুদাসপুরের বনপাড়া-হাটিকুমরুল মহাসড়কের কাছিকাটা বিশ্বরোড মোড়ে ইকবাল হোসেন নামের এক সেনা ওয়ারেন্ট অফিসার সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন। হাইওয়ে পুলিশ সূত্রে জানাযায়, বৃহস্পতিবার সকালে সেনাবাহিনীর গাড়ীবহর ঈশ্বরদীর রুপপুর থেকে ময়মনসিংহ যাওয়ার পথে কাছিকাটা বিশ্বরোড মোড়ে ওই দুর্ঘটনা ঘটে। সেনাবাহিনীর একটি গাড়ী ব্রেক করলে পিছনে থাকা তাদের অপর গাড়ীটি অসাবধানতার কারণে সামনের গাড়ীকে ধাক্কা দেয়। এতে সামনের গাড়ীতে থাকা তাবু তৈরীর এঙ্গেল ও লোহার পাইপ পিছনের গাড়ীর গ্লাস ভেঙ্গে সেকেন্ড ফিটারে বসে থাকা ওই ওয়ারেন্ট অফিসারের বুকের মধ্যে ঢুকে পড়ে। তার সাথে থাকা সেনা সদস্য ও হাইওয়ে পুলিশ তাকে উদ্ধার করে বনপাড়া পাটোয়ারী হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত্যু ঘোষণা করেন। বনপাড়া হাইওয়ে থানার অফিসার ইনচার্জ জিএম শামসুর-নুর ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, লাশ ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। ঘটনাটি আইনী প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

জামালপুর সংবাদদাতাঃ  জামালপুরের মেলান্দহে সড়ক দুর্ঘটনায় বৃদ্ধের মৃত্যু হয়েছে। নিহত ব্যক্তির নাম আকবর আলী (৭০)। তিনি উপজেলার মেঘারবাড়ী গ্রামের মৃত্যু  আবু তালেবের ছেলে বলে জানা গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে গতকাল দুপুর ১২ টার দিকে শ্যামপুর বাজারে। এলাকাবাসিরা জানিয়েছেন, শ্যামপুর বাজারে আকবর আলী রাস্তা ক্রসিংয়ের সময় জামালপুর থেকে দেওয়ানগঞ্জগামী একটি  ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান। খবর পেয়ে পুলিশ ট্রাকটি আটক করলেও চালক পালিয়ে যায়।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ