ঢাকা, বৃহস্পতিবার 28 June 2018, ১৪ আষাঢ় ১৪২৫, ১৩ শাওয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

অবশেষে ধানের শীষ প্রতীক পেলেন আরিফ

সিলেট ব্যুরো : সিলেট নগর বিএনপির বিভিন্ন পদবীধারী নেতাদের নাটক মঞ্চায়নের পর অবশেষে সিলেট সিটি করপোরেশন (সিসিক) নির্বাচনে বিএনপি থেকে মেয়র পদে দলীয় মনোনয়ন পেয়েছেন দলের কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য আরিফুল হক চৌধুরী। সিসিকের বর্তমান এই মেয়রকেই দ্বিতীয়বারের মতো দলীয় মনোনয়ন দিল বিএনপির কেন্দ্রীয় হাইকমান্ড। দলের সিলেট মহানগর সেক্রেটারি বদরুজ্জামান সেলিমের সিসিক নির্বাচনে মেয়র পদে প্রার্থী নিয়ে নাটক মঞ্চায়ন ছিল চোখে পড়ার মতো। নগরবাসী প্রশ্ন তুলছেন প্রথম থেকে বোঝা যাচ্ছে আরিফুল হক চৌধুরীই বিএনপির ধানের শীষ পাবেন। তাহলে এতো নাটকের দরকার কী ছিল?
গতকাল বুধবার ঢাকার গুলশান কার্যালয়ে কেন্দ্রীয় এবং সিলেটের নেতৃবৃন্দের সাথে  বৈঠক শেষে  বর্তমান মেয়র আরিফের নাম ঘোষণা করেন দলের মহাসচিব মীর্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বুধবার বিকেলে দৈনিক সংগ্রামকে এমন তথ্য নিশ্চিত করেছেন আরিফুল হক চৌধুরী।
সভায় উপস্থিত ছিলেন বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা মো. মোশাররফ হোসেন, আমীর খসরু মাহমুদ, মঈন খান।
ঢাকায় সভায় সিলেটের নেতৃবৃন্দের মধ্যে ছিলেন- বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রাজ্জাক, বিএনপি নেতা ও সিলেট সিটি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, জেলা বিএনপির সভাপতি আবুল কাহের চৌধুরী শামিম, সাধারণ সসম্পাদক আলী আহমদ, ডা. শাহরিয়ার হোসেন, মহানগর বিএনপির সভাপতি নাসিম হোসেইন, সাধারণ সম্পাদক বদরুজ্জামান সেলিম, রেজাউল হাসান কয়েস লোদী, আজমল বখত সাদেক, ইশতিয়াক সিদ্দিকীসহ ১১ জন।
আরিফুল হক চৌধুরী বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সদস্য। তিনি সিসিকের ২০১৩ সালের নির্বাচনে আওয়ামী লীগ নেতা বদর উদ্দিন আহমদ কামরানকে বড় ব্যবধানে পরাজিত করে মেয়র নির্বাচিত হন।
এবার সিসিক নির্বাচনে বিএনপি থেকে মেয়র পদে নির্বাচন করতে আগ্রহী ছিলেন ছয়জন। তারা হলেন- সিসিকের বর্তমান মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, সিলেট মহানগর বিএনপির সভাপতি নাসিম হোসেন, সিনিয়র সহ-সভাপতি আব্দুল কাইয়ুম জালালী পংকী, সহ-সভাপতি রেজাউল হাসান কয়েস লোদী, সাধারণ সম্পাদক বদরুজ্জামান সেলিম ও যুবদল নেতা সালাহ উদ্দিন রিমন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ