ঢাকা, রোববার 1 July 2018, ১৭ আষাঢ় ১৪২৫, ১৬ শাওয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

জামায়াত সংশ্লিষ্টতার অভিযোগে সাতক্ষীরা সিটি কলেজের উপাধ্যক্ষসহ ৫ জন আটক

সাতক্ষীরা সংবাদদাতাঃ রাতে ঘুমন্ত অবস্থায় সাতক্ষীরার আশাশুনি থেকে  জামায়াতের সংশ্লিষ্টতার অভিযোগে কলেজের উপাধ্যক্ষ, প্রভাষকসহ তিন ব্যক্তিকে আটক করেছে পুলিশ। বৃহষ্পতিবার দিবাগত রাতে আশাশুনি এলাকার শাহীন সরদারের বাড়ি  থেকে পুলিশ তাদেরকে অটক করে। পরে পৃথক স্থান থেকে আরো দু’জনকে  আটক করে।
আটককৃতরা হলেন, সাতক্ষীরা সিটি কলেজের উপাধ্যক্ষ জেলা জামায়াতের সিনিয়র সহকারী সেক্রেটারি কলারোয়া উপজেলার লাঙ্গলঝাড়া গ্রামের রুস্তম আলীর  ছেলে জনপ্রিয় ব্যক্তি শহীদুল ইসলাম মুকুল (৫৭),কালিগঞ্জ উপজেলার মহৎপুর গ্রামের মৃত সায়েদউদ্দিনের ছেলে উপজেলা কালিগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের প্রভাষক মোসলেম উদ্দিন (৫৩), আশাশুনি উপজেলা সদরের আশাশুনি গ্রামেরে হামজা আলীর ছেলে উপজেলা জামাতের সেক্রেটারি আবু মুছা তারিক ওরফে তুষার(৫২), আশাশুনি উপজেলার প্রতাপনগর ইউনিয়ন জামাতের সেক্রেটারি খলিলুর রহমান ও আশাশুনি উপজেলা জামায়াত নেতাইয়াছিন। এর মধ্যে ইয়াছিনকে শুক্রুবার রাতে  আটক করে পুলিশ।
এর আগে বৃহষ্পতিবার দিবাগত রাত একটার দিকে শাহীন সরদারের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে পুলিশ অপর তিন জামায়াত নেতাকে আটক করে।
আটককৃতরা জামায়াতের রাজনীতির সাথে জড়িত বলে সূত্র জানায়। শহীদুল ইসলাম মুকুল সাতক্ষীরা জামায়াতের সহকারী সেক্রেটারি, প্রভাষক মোসলেম উদ্দিন  এক সময় জামায়াত করতে। পরে পত্রিকায় ঘোষণা দিয়েই তিনি রাজনৈতিক জীবনের ইতি টানেন। আবু মুছা তারিক ওরফে তুষার জামায়াত করার কারণে তাকে কয়েক বার  কারাবরণ করতে হয়েছে। এছাড়া খলিলুর রহমান ও ইয়াছিন জামায়াতের বিভিন্ন পর্যায়ের দায়িত্বশীল বলে সূত্র জানান।
আশাশুনি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোস্তাফিজুর রহমান জানান, প্রতাপনগর গ্রামে জামাতের গোপন বৈঠক চলছে- এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শুক্রবার সকালে সেখানে অভিযান চালানো হয়। এ সময় শাহীন সরদারের বাড়ি থেকে তিন উপজেলা জামাতের সেক্রেটারিসহ ৫ জনকে গ্রেফতার করা হয়। এ সময় দু’বস্তা জিহাদী বই, জঙ্গি সংগঠনের বইসহ বিপুল পরিমাণে বিস্ফারক দ্রব্য উদ্ধার করা হয়। গ্রেফপ্তারকৃতদের বিরুদ্ধে হত্যা, নাশকতাসহ একাধিক মামলা রয়েছে। এ ঘটনায় উপপরিদর্শক হাসান আলী বাদী হয়ে গ্রেফতারকৃত ৫ জনসহ অজ্ঞাতনামা ১৪/১৫ জনের বিরুদ্ধে নাশকতা ও বিস্ফারক দ্রব্য আইনে শুক্রবার থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।
শনিবার আটককৃতদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ