ঢাকা, সোমবার 2 July 2018, ১৮ আষাঢ় ১৪২৫, ১৭ শাওয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

রাজউকের ৩ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ভুয়া দলিলে সরকারি জমি দখলের মামলা

স্টাফ রিপোর্টার : ভুয়া দলিলের মাধ্যমে পুরান ঢাকায় ২৭ কাঠা সরকারি জমি দখল করে ১০ তলা ভবন নির্মাণের অভিযোগে রাজউকের তিন কর্মকর্তাসহ চার জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। রাজধানীর মতিঝিল থানায় বৃহস্পতিবার এবিষয়ে অভিযোগ দায়ের করা হয় বলে মামলাটির বাদী দুদকের উপ-সহকারী পরিচালক ইসমাইল হোসেন গতকাল রোববার জানিয়েছেন।
মামলায় যাদেরকে আসামী করা হয়েছে তারা হলেন- শিকদার কনস্ট্রাকশনের স্বত্বাধিকারী কাজী নুরুজ্জামান শিকদার, রাজউকের উত্তরা এস্টেট ও ভূমি শাখা-২ এর কানুনগো আলী আজগর, সহকারী অথরাইজড অফিসার আব্দুর রউফ সরকার ও ইমারত পরিদর্শক শওকত আলী।
দুদকের উপ-সহকারী পরিচালক ইসমাইল বলেন, আসামীরা পরস্পর যোগসাজশে ভবন নির্মাণে রাজউকের নকশা অনুমোদনে সরকারি সম্পত্তির মালিকানা সংক্রান্ত তথ্য গোপন করে ভবন নির্মাণ ও সরকারি সম্পত্তি আত্মসাৎ করেছেন। “এ জন্য আসামিদের বিরুদ্ধে দন্ডবিধির ৪২০/১০৯ ও দুর্নীতি প্রতিরোধ আইন-১৯৪৭ এর ৫(২) ধারায় অভিযোগ আনা হয়েছে মামলায়।” ভুয়া দলিলের মাধ্যমে সরকারি ২৭ কাঠা জমিতে ১০ তলা ভবন নির্মাণের অভিযোগে এক ঠিকাদার ও রাজউকের তিন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।
মামলার এজাহারে অভিযোগ করা হয়, অনিয়মের মাধ্যমে ২০০৬ সালে ৯তলা ভবন নির্মাণের অনুমোদন নিয়ে রাজধানীর কোতোয়ালীর থানার ইসলামপুরের আহসান উল্লাহ রোড এলাকায় সরকারি এই জমিতে ১০ তলা ভবন নির্মাণ সম্পূর্ণ করে তার ওপরে আরও নির্মাণ কাজ চলমান আছে।
রাজউক থেকে ভবনটিতে দোকান বা বিপনী বিতানের অনুমোদন না থাকলেও ভবনটির নিচতলা থেকে পাঁচতলা পর্যন্ত বিপণী বিতান ও দোকান হিসেবে ব্যবহার হচ্ছে।
দুদকের অনুসন্ধানের তথ্য উল্লেখ করে এজাহারে আরও বলা হয়, এ সম্পত্তির বর্তমান দখলদার মো. নুরুজ্জামান শিকদার এবং তার তিন ছেলে ও ছেলেদের স্ত্রীসহ পরিবারের মোট ১২ জন সদস্যের নামে দখলের ভিত্তিতে ইজারা নেওয়া হয়েছিল।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ