ঢাকা, সোমবার 2 July 2018, ১৮ আষাঢ় ১৪২৫, ১৭ শাওয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

বগুড়ায় আওয়ামী লীগ অফিসে আগুন বিএনপি নেতাকর্মীদের নামে মামলা

বগুড়া অফিস: বগুড়ায় আওয়ামী লীগের আঞ্চলিক কমিটির অফিস আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দিয়েছে বিএনপির কর্মীরা। শনিবার গভীর রাতে বগুড়া শহরের  ২০নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের নারুলী খন্দকারপাড়া আঞ্চলিক কমিটির অফিসে আগুন দেয়ার ঘটনা ঘটে। এঘটনায় বিএনপির ২০-৩০ জনের নামে থানায় মামলা হয়েছে। গত শুক্রবার বাল্যবিয়ে বন্ধ করে দেয়ার জের ধরে আওয়ামী লীগ অফিসে আগুন দেয়া ঘটনা ঘটেছে বলে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে। আওয়ামী লীগের নারুলী খন্দকারপাড়া আঞ্চলিক কমিটির সভাপতি গোলাম রব্বানী খান নাদির জানান, গত শনিবার রাত ২টা পর্যন্ত দলীয় অফিসে নেতাকর্মীরা বিশ্বকাপ ফুটবল খেলা দেখেছে। নেতাকর্মীরা বাড়ি চলে যাওয়ার পর অফিসে পেট্রোল ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়া হয়। এতে অফিসে রাখা বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি ছাড়াও টেলিভিশন আসবাবপত্র পুড়ে ছাই হয়ে যায়। আওয়ামী লীগ অফিসে আগুন দেয়ার কারণ হিসেবে তিনি জানান, গত শুক্রবার খন্দকার পাড়ার অটোটেম্পু চালক বাবু মিয়ার স্কুল পড়–য়া মেয়ের বিয়ের আয়োজন করা হয়। বিকেলে সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত সেখানে গিয়ে বিয়ে বন্ধ করে দেয়। এছাড়াও দুইজনকে আটক করে কারাদ- প্রদান করেন। তিনি আরো বলেন, যার মেয়ের বিয়ে বন্ধ হলো তার কোনো অভিযোগ নেই কিন্তু স্থানীয় বিএনপি কর্মী শাহ আলম, শাহ জামাল, রিগ্যান, বুলবুল, ফরহাদ শুক্রবার থেকেই বলে বেড়াচ্ছে আওয়ামী লীগ অফিসে যারা বসে থাকে তারাই ইউএনওকে ডেকে বিয়ে বন্ধ করেছে। নেতাকর্মীদেরকে উচ্ছেদ করতেই তারা পরিকল্পিত ভাবে আওয়ামী লীগ অফিসে আগুন দিয়েছে। বগুড়া শহরের নারুলী পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ তারিকুল ইসলাম জানান, বাল্য বিয়ে বন্ধের জের ধরেই আগুন দেয়ার ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় কাউকে গ্রেফতার করা যায়নি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ