ঢাকা, সোমবার 2 July 2018, ১৮ আষাঢ় ১৪২৫, ১৭ শাওয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

হেলিপ্যাড এলাকার দখল ঠেকাতে পারেনি পাউবো

এইচ,এম, হুমায়ুনকবির কলাপাড়া (পটুয়াখালী) : পটুয়াখালীর কলাপাড়া হেলিপ্যাড মাঠ ঘেঁষা পানি উন্নয়ন বোর্ডের জমি দখল করে অবৈধ স্থাপনা তোলা বন্ধ হয়নি । যেখানে বলা হয়েছে, মোঃ জসিম প্যাদা কলাপাড়া হেলিপ্যাড এবং ভূমি অফিসের সামনে পানি উন্নয়ন বোর্ডের অধিগ্রহণকৃত ৬৩৭ নম্বর দাগে একটি পাকা স্থাপনা নির্মাণ করছেন। সরকারি সম্পত্তি দখলের কারণে তাঁরা কাজ বন্ধ করে দেন। কিন্তু স্থাপনা তোলার কাজ থেমে থাকেনি।
বর্তমানে পাকা দেয়ালের উপরে টিনের ছাউনির কাজ শেষ করা হয়েছে। এখনও সেখানে কাজ চলছে। সেমিপাকা ওই স্থাপনার তোলার প্রাক্কালে থানায় লিখিত অভিযোগ দেয় পাউবো কর্তৃপক্ষ। হেলিপ্যাড মাঠের আশপাশে এমনিতেই কোন স্থাপনা না থাকার কথা। ইতোপুর্বে যা ছিল তা উচ্ছেদ করে দেয় প্রশাসন। কারণ সরকার প্রধান, কিংবা রাষ্ট্রপ্রধান থেকে শুরু করে গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিবর্গ এই হেলিপ্যাডটি ব্যবহার করেন। হেলিকপ্টার ওঠা-নামায় কোন ঝুঁকি না থাকে এজন্যই এমন উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। তারপরও ওই এলাকায় তাও সরকারি সম্পত্তি দখল করে মামলা করার পরও অবৈধ স্থাপনা তোলার ঘটনায় সাধারণ মানুষের প্রশ্ন এই দখলদারের খুঁটির জোর কোথায়। তবে প্রশাসনের দাবি যে কোন মুহূর্তে ওই স্থাপনা অপসারণ করা হবে।। কলাপাড়া পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলীর কার্যালয়ের উপ-সহকারী প্রকৌশলী মোঃ মিজানুর রহমান ৯ জুন কলাপাড়া থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন।
কলাপাড়া থানার ওসি মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেন জানান, অভিযুক্ত দখলদার জসিম প্যাদা কাজ করবেন না এমন একটি লিখিত মুচলেকা তার কাছে দিয়েছেন। কিন্তু কাজ থেমে থাকেনি।
কলাপাড়া পাউবো নির্বাহী প্রকৌশলী মোঃ আবুল খায়ের জানান, এটি অপসারণে প্রশাসনিক উদ্যোগ নেয়ার কাজ চলছে। তার বিরুদ্ধে এছাড়াও সরকারি খাস জমি ভূমিহীন দেখিয়ে বন্দোবস্ত নেয়ার অভিযোগ রয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ