ঢাকা, বৃহস্পতিবার 5 July 2018, ২১ আষাঢ় ১৪২৫, ২০ শাওয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

সাঁথিয়ায় ইয়াবা ও নকল ওষুধ তৈরির কারখানার সন্ধান আটক ৩ কোটি টাকার মেশিন জব্দ

সাঁথিয়া (পাবনা) সংবাদাতা : পাবনার সাঁথিয়া থানা পুলিশ বুধবার রাতে উপজেলার কাশিনাথপুর গ্রামের বাবু পাড়ায় অভিযান চালিয়ে নকল ওষুধ ও ইয়াবা তৈরির কারখানা থেকে নকল ওষুধসহ ৩ জনকে আটক করেছে। এসময় ওষুধ তৈরির কোটি টাকা দামের মেশিন, মালামাল ও ওষুধ জব্দ করেছে।
আটককৃতরা হলো কাশিনাথপুর গ্রামের বাবু পাড়ার রফিকুল ইসলামের ছেলে বদিউর রহমান (৩৫), তার ছোট ভাই জামিল হোসেন (৩০) ও একই গ্রামের শুকুর শেখের ছেলে মিজানুর রহমান (৩৮)।
সরেজমিন ও পুলিশ সূত্রে জানাযায়, গোপন সূত্রে সংবাদ পেয়ে এএসপি (সার্কেল) মিয়া মোহাম্মদ আশিস বীন হাসান ও কাশিনাথপুর ফাঁড়ির এনচার্জ আশরাফুল আলম মঙ্গলবার দিনগত রাত ১ টার দিকে বাবু পাড়ার রফিকুল ইসলাম ও শুকুর শেখের বাড়িতে অভিযান চালান। এসময় পুলিশ ঘটনা স্থলে আসামীদের এসিআই কোম্পানীর ফ্লুক্লক্্র-৫০০ (এন্টিভায়োটিক) ওষুধ মেশিনে তৈরিরত অবস্থায় আটক করে। পরে তাদের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী ওই দুই বাড়ি থেকে ওষুধ তৈরির কোটি টাকা দামের মেশিন, জীবন রক্ষাকারী নকল ফ্লুক্লক্্র-৫০০ ট্যাবলেট, ঔষুধ তৈরির নকল কাচাঁমাল, বিভিন্ন ধরণের যৌন উত্তেজনার ওষূধের মোড়ক উদ্ধার করে। আটককৃত বদিউর রহমান জানান, ঢাকার পুরানো পল্টনের আজাদ সেন্টারে আমাদের মালিক থাকেন। তার নাম শাহেদ মির্জা। তিনি আমাদের কাছে কাঁচামাল সবরাহ করে থাকেন। ওষূধ তৈরির মেশিন তিনি দিয়েছেন। আমরা ঔষূধ তৈরি করে শাহেদ মির্জার নিকট ঢাকায় পাঠিয়ে থাকি। তিনি ঢাকা থেকে সারা দেশে এ ওষূধ সরবরাহ করে থাকেন। আমরা সবাই ময়মনসিংহ থেকে প্রশিক্ষ গ্রহণ করেছি।
আসামীদের বিরুদ্ধে সাঁথিয়া থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে : থানার ওসি (তদন্ত) আব্দুল মজিদ জানান, আসামীদের একটি সঙ্গবদ্ধ দল রয়েছে তারা সুকৌশলে নকল ওষুধের নকল কাঁচামালসহ বাজারে ওষুধ সরবরাহ করে থাকে। তিনি আরও বলেন, এরা ওষুধের আড়ালে ইয়াবার ব্যবসা করে। আসামীরা ইয়াবা তৈরিসহ বিভিন্ন অপরাধের সাথে জড়িত। ছাত্র দল নেতা বদিউলের বিরুদ্ধে ময়মনসিংহে মাধকের মামলা রয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ