ঢাকা, শুক্রবার 6 July 2018, ২২ আষাঢ় ১৪২৫, ২১ শাওয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

বর্তমানে দেশে মজুদ গ্যাসের পরিমাণ ৩৯ দশমিক ৯ ট্রিলিয়ন ঘনফুট

সংসদ রিপোর্টার: বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপু বলেছেন, বর্তমানে দেশে প্রাথমিক গ্যাস মজুদের পরিমাণ ৩৯.৯ ট্রিলিয়ন ঘনফুট, যা পেট্টোবাংলার সর্বশেষ প্রাক্কলন তথ্যে এ পরিসখ্যান উঠে এসেছে। তন্মধ্যে উত্তোলনযোগ্য প্রমাণিত এবং সম্ভাব্য মজুদের পরিমাণ ২৭.৭৬ ট্রিলিয়ন ঘনফুট। 

গতকাল বৃহস্পতিবার সরকার দলীয় সংরক্ষিত মহিলা এমপি বেগম ফজিলাতুন নেসা বাপ্পির লিখিত প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী সংসদকে এ তথ্য জানান। স্পিকার ড. শিরিন শারমীন চৌধুরীর সভাপতিত্বে বিকালে এ অধিবেশন শুরু হয়।

বিদ্যুৎ মন্ত্রী আরো বলেন, ১৯৬০ সাল থেকে শুরু করে ডিসেম্বর ২০১৭ পর্যন্ত ক্রমপুঞ্জিত গ্যাসের উৎপাদনের পরিমাণ প্রায় ১৫.২২ ট্রিলিয়ন ঘনফুট। ফলে চলতি বছরের জানুয়ারি সময়ে উত্তোলনযোগ্য নীট মজুদের পরিমাণ ১২.৫৪ ট্রিলিয়ন ঘনফুট। 

তিনি বলেন,  দেশের ক্রমবর্ধমান গ্যাসের চাহিদা পূরণের লক্ষ্যে বাপেক্সের ২০২১ সালের মধ্যে ৫৭০ লাইন কিঃ মিঃ ভূতাত্ত্বিক জরিপ ৯ হাজার ৮০০ লাইন কিঃ মিঃ ২ডি সিসমিক সার্ভে এবং ২ হাজার ৯৪০ বর্গ কিঃ মিঃ ৩ডি সিসমিক সার্ভে করার পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে। এছাড়া, রূপকল্প ২০২১ এর আওতায় মোট ১০৮টি কূপ (৫৩টি অনুসন্ধান কূপ, ৩৫টি উন্নয়ন ও ২০টি কূপ ওয়ার্কওভার) খননের পরিকল্প গ্রহণ করা হয়েছে। বর্তমান সরকার দেশের অনুসন্ধান কোম্পানি বাপেক্স এর কারিগরি সক্ষমতা বৃদ্ধির গভীর কূপ খননের ক্ষমতা সম্পন্ন ৪টি আধুনিক রিগ ক্রয় করাসহ অনুসন্ধান কার্যক্রম প্রয়োজনীয় বিভিন্ন যন্ত্রাংশ ক্রয় করা হয়েছে।

মন্ত্রী বলেন,  প্রোডাকশন শেয়ারিং কন্ট্রাক্ট (পিএসসি) অনুযায়ী অগভীর সমুদ্রঞ্চল ব্লক স্যালো সি (এসএস)-১১ এ ৩২০০ লাইন কিলোমিটার ২ডি সিসমিক সার্ভে, গত এপ্রিলে ৩০০ বর্গ কিঃ মিঃ ৩ডি সিসমিক সার্ভে, ব্লক এসএস-৪ এবং ব্লক এসএস-৯ এ ১ম ধাপে ৩০১০ লাইন কিলোমিটার ২ডি মেরিন সিসমিক সার্ভে এবং ২য় ধাপে আরও প্রায় ২০৬০ লাইন কিলোমিটার ২ডি ওবিসি (ওশান বেড ক্যাবল) সিসমিক সার্ভে কার্যক্রম সম্পন্ন করা হয়েছে। গভীর সমুদ্রের ডিপ সি (ডিএস)-১২ ব্লকে ৩৫৬০ লাইন কিলোমিটার ২ডি সিসমিক সার্ভেসহ ডাটা ইন্টারপ্রিটেশন সম্পন্ন হয়েছে। আগামী নভেম্বর নাগাদ ১০০০ বর্গ কিলোমিটার ৩ডি সিসমিক সার্ভের পরিকল্পনা রয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ