ঢাকা, শুক্রবার 6 July 2018, ২২ আষাঢ় ১৪২৫, ২১ শাওয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

২৪ বছর পর চালু হলো রাষ্ট্রায়ত্ত ঢাকা স্টিল ওয়ার্কস

 

স্টাফ রিপোর্টার: দীর্ঘ ২৪ বছর বন্ধ থাকার পর পুনরায় চালু হলো বাংলাদেশ ইস্পাত ও প্রকৌশল করপোরেশনের (বিএসইসি) আওতাধীন রাষ্ট্রায়ত্ত রি-রোলিং মিল ঢাকা স্টিল ওয়ার্কস লিমিটেড।

গতকাল বৃহস্পতিবার গাজীপুরের টঙ্গীতে প্রতিষ্ঠানটির পুন:চালুকরণ কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু।

শিল্পসচিব মোহাম্মদ আব্দুল্লাহর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি ও সংসদ সদস্য মো. জাহিদ আহ্সান রাসেল, গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট আজমত উল্লা খান, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের নবনির্বাচিত মেয়র এডভোকেট মো. জাহাঙ্গীর আলম, বিএসইসির চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান, জাতীয় শ্রমিক লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক খান সিরাজুল ইসলম এবং ঢাকা স্টিল ওয়াকর্স লিমিটেডের ভারপ্রাপ্ত ব্যবস্থাপনা পরিচালক মনিরুজ্জামান খান বক্তব্য রাখেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে শিল্পমন্ত্রী বলেন, স্বাধীনতার আগে টঙ্গী, নারায়ণগঞ্জসহ বিভিন্ন এলাকায় গড়ে ওঠা কোনো কল-কারখানার মালিকানা বাঙালির ছিল না। এসব কারখানার মালিকানা অবাঙালি বিহারিদের হাতে ছিল। স্বাধীনতার পর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিহারিদের এসব শিল্প কারখানা জাতীয়করণের মাধ্যমে হাজার হাজার শ্রমিক-কর্মচারীর কর্মসংস্থান করেছিলেন। পঁচাত্তরের ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর গোষ্ঠিগত স্বার্থে রাষ্ট্রায়ত্ত শিল্পপ্রতিষ্ঠানগুলোকে পানির দরে বিক্রি করে দেওয়া হয়েছিল। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পুনরায় ক্ষমতায় এসে এগুলো রাষ্ট্রীয় মালিকানায় ফিরিয়ে আনার পাশাপাশি সমস্ত বন্ধ কারখানা চালুর উদ্যোগ নেন। এ উদ্যোগের অংশ হিসেবে ১৯৯৪ সালে বন্ধ হয়ে যাওয়া ঢাকা স্টিল ওয়ার্কস লিমিটেড পুনরায় চালু করা হলো।

তিনি আরো বলেন, অতি অল্প সময়ের মধ্যে ঢাকা স্টিল ওয়ার্কস লিমিটেডকে পুর্ণাঙ্গ শিস্ত্রপ্রতিষ্ঠানে পরিণত করা হবে। এ শিল্পকে বৃহৎ আকারে রূপ দিতে এর অন্য দুটি ইউনিটও চালু করা হবে। এ কারখানা লাভজনক করতে পণ্য বৈচিত্রকরণ ও পরিবেশবান্ধব পণ্য উৎপাদনে জোর দিতে হবে।

প্রতিষ্ঠানটির সকল শ্রমিক, কর্মচারী ও কর্মকর্তাকে সর্বোচ্চ আন্তরিকতা, নিষ্ঠা, দক্ষতা ও পেশাদারিত্বের সাথে দায়িত্ব পালনের আহ্বান জানান শিল্পমন্ত্রী।

অনুষ্ঠানে বক্তারা দীর্ঘ দিন ধরে বন্ধ থাকা এ কারখানা চালুর জন্য বর্তমান সরকারের প্রশংসা করে বলেন, এটি চালুর ফলে বাজারে রডের মূল্য স্থিতিশীল থাকবে এবং জনগণ উপকৃত হবে।

তারা পরিবেশ সুরক্ষায় গাজীপুর জেলায় অবস্থিত সকল শিল্প কারখানায় ইটিপি স্থাপন বাধ্যতামূলক করার জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানান।

উল্লেখ্য, ১৯৭২ সালে রাষ্ট্রপতির ২৭ নম্বর আদেশে ঢাকা স্টিল ওয়ার্কস লিমিটেড জাতীয়করণ করা হয়। ওই সময় বিএসইসির ওপর এটি পরিচালনার দায়িত্ব ন্যস্ত করা হয়। ১৯৯৪ সালে বিএনপি সরকার প্রতিষ্ঠানটি পে-অফ ঘোষণা করে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বন্ধ কারখানা চালুর ঘোষণা বাস্তবায়নের অংশ হিসেবে শিল্প মন্ত্রণালয় এটি চালুকরণের জন্য বিএসইসিকে তাগিদ দেয়। এর আলোকে ২০১৬ সাল থেকে কারখানাটি পুনরায় চালুকরণের প্রক্রিয়া শুরু হয়। পর্যায়ক্রমে গ্যাস, বিদ্যুৎ ও পানির সংযোগ গ্রহণ, ভূমি উন্নয়ন কর, পৌর কর ও বিভিন্ন বকেয়া বিল পরিশোধ, পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র, ফায়ার লাইসেন্স, বিদ্যুৎ লাইসেন্সিং বোর্ডের ছাড়পত্রসহ প্রয়োজনীয় কাগজপত্র হালনাগাদ করার পর আজ এটি আনুষ্ঠানিকভাবে চালু করা হলো।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ