ঢাকা, বুধবার 11 July 2018, ২৭ আষাঢ় ১৪২৫, ২৬ শাওয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

গাজীপুরে পুলিশ ইন্সপেক্টরের বস্তাবন্দী পোড়া লাশ উদ্ধার

গাজীপুর সংবাদদাতা : গাজীপুরের কালীগঞ্জ উপজেলার রায়েরদিয়া এলাকায় একটি জঙ্গল থেকে মঙ্গলবার এক পুলিশ কর্মকর্তার বস্তাবন্দী পোড়া লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তার নাম মামুন ইমরান খান (৩৪)। সে ঢাকার এসবি’র স্কুল অব ইনটেলিলেন্সে ইন্সপেক্টর পদে কর্মরত ছিলেন। সে ঢাকার নাবাব গঞ্জ এলাকায় মোঃ আজহার আলীর ছেলে।
মঙ্গলবার দুপুরে গাজীপুরের কালিগজ্ঞ উপজেলার রায়েরদিয়া রাস্তার পাশের একটি জঙ্গলে বস্তাবন্দী পা বের হওয়া একটি লাশ পড়ে থাকতে দেখেন এলাকাবাসী। তারা উলুখোলা পুলিশ ফাঁড়ির পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে কালীগঞ্জ থানার ওসি মো আবু বকর মিয়ার উপস্থিতিতে লাশটি উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত লাশটি আগুনে পোড়ানো এবং চেহারা বিকৃত হয়ে গেছে। গাজীপুরের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ হারুন-অর-রশীদ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ গোলাম সবুরসহ ঢাকার স্পেশাল ব্রাঞ্চের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।
উলুখোলা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (এসআই) মোঃ গোলাম মাওলা জানান, লাশটি উদ্ধারের পর ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুরের শহীদ তাজ উদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
কালীগঞ্জ সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার পংকজ দত্ত জানান, ২০০৫সালে তিনি পুলিশে যোগ দেন। গত ৮জুলাই মামুন তার মধ্য বাসাবোর বাসা থেকে বনানী এলাকায় একটি পারিবিারিক অনুষ্ঠানে যান। এরপর তার আর কোন খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না। ধারণা করা হচ্ছে একটি চক্র মামুনকে পুড়িয়ে হত্যার পর লাশটি গাজীপুরে জঙ্গলে ফেলে গেছে। মামুনের এক বন্ধু প্রাথমিকভাবে মামুনের লাশটি সনাক্ত করেন। ওই বন্ধু পুলিশকে অনেক তথ্য জানিয়েছে। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করলেই আরো তথ্য পাওয়া যেতে পারে। এ ব্যাপারে তার বড় ভাই সবুজবাগ থানায় একটি সাধারণ ডায়রি করেন। তবে পুলিশের ধারণা কোন পেশাদার কিলাররাই ওই ঘটনা ঘটিয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ