ঢাকা, শুক্রবার 13 July 2018, ২৯ আষাঢ় ১৪২৫, ২৮ শাওয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

সরকারের শেষ বাজেট  অধিবেশনের সমাপ্তি

সংসদ রিপোর্টার: দশম জাতীয় সংসদের ২১তম (বাজেট) অধিবেশন শেষ হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী অধিবেশন সমাপ্তি সংক্রান্ত রাষ্ট্রপতির আদেশটি পড়ে শোনান। সরকার ও বিরোধী দলের সদস্যদের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণে ২৫ কার্যদিবসের এই অধিবেশন ছিলো প্রাণবন্ত। অধিবেশনে বাজেটের পাশাপাশি জনগুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন ইস্যুতে সরব ছিলেন এমপিরা। বর্তমান সরকারের মেয়াদের শেষ এই বাজেট অধিবেশন গত ৫ জুন শুরু হয়। ৭ জুন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত জাতীয় সংসদে ৪ লাখ ৬৮ হাজার ৫৭৩ কোটি টাকার প্রস্তাবিত বাজেট উত্থাপন করেন। এরপর প্রস্তাবিত বাজেট নিয়ে আলোচনায় সরকার ও বিরোধী দলের সদস্যরা নানা ইস্যুতে সরকার ও অর্থমন্ত্রীর কঠোর সমালোচনা করেন। তারা নানা দাবির কথাও তুলে ধরেন। প্রস্তাবিত বাজেটের উপর ২২৩ জন সদস্যের ৫৫ ঘন্টা ৫৫ মিনিটের সাধারণ আলোচনা শেষে গত ২৮ জুন পাস হয় এই মেগা বাজেট। 

আলোচিত এই অধিবেশনে সংসদে সংরক্ষিত নারী আসনের মেয়াদ আরো ২৫ বছর বাড়াতে উত্থাপিত সংবিধান সংশোধনী বিলসহ গুরুত্বপূর্ণ ১৪টি বিল পাস হয়েছে। এছাড়া কার্যপ্রণালী বিধির ৭১ বিধিতে ১৮০টি নোটিশ পাওয়া যায়। এরমধ্যে ১২টি নোটিশ গৃহীত হয়। গৃহীত নোটিশের মধ্যে ৭টি নোটিশের ওপর আলোচনা হয়। এছাড়াও ৭১(ক) বিধিতে সংসদ সদস্যদের উত্থাপিত ৩৮টি নোটিশ নিয়ে দু’মিনিট করে আলোচনা হয়। অধিবেশনে প্রধানমন্ত্রীর জন্য নির্ধারিত দিনগুলোতে মোট ১৬৫টি প্রশ্ন পাওয়া যায়। এরমধ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ৬৭টি প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন। এছাড়া বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রীদের জন্য ২ হাজার ৮৮১টি প্রশ্ন পাওয়া যায়। এরমধ্যে মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রীরা ২ হাজার ২৯টি প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন। এছাড়া বিভিন্ন ইস্যুতে মন্ত্রীরা ৩০০ বিধিতে কয়েকটি বিবৃতি দিয়েছেন। 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ