ঢাকা, শুক্রবার 20 July 2018, ৫ শ্রাবণ ১৪২৫, ৬ জিলক্বদ ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

কবিতা

 

কাশ্মীরের আসিফার কথা বলছি

জয়নুল আবেদীন আজাদ

 

মন্দিরে আট বছরের শিশুকে আটকে রেখে

ধর্ষণ এবং হত্যার ঘটনায়

আমার কোনো সমালোচনা নেই।

কারণ, এমন ঘটনা মানুষের আলোচনার টেবিলে

আসতেই পারে না,

ওরা আসলে মনুষ্য সমাজের কেউ নয়।

 

আমি কাশ্মীরের আসিফার কথা বলছি-

যাযাবর বাকারওয়াল সম্প্রদায়ের দরিদ্র শিশুটি

আর পাঁচজনের মত গিয়েছিল পশু চরাতে

একটু দূরের সবুজ বনাঞ্চলে।

পশু-পাখির সাথে দৌড়-ঝাঁপ আর

কলকাকলিতে বেশ আনন্দেই ছিল সে।

কিন্তু স্বর্গোদ্যানের সেই আনন্দলোকে

হঠাৎ হামলা হলো পিশাচদের।

 

মন্দিরের নেতা সানজিরাম একা নয়

সাথে ছিল পুলিশও,

অতঃপর সাম্প্রদায়িক উন্মাদনায়

ধর্ষণ এবং নির্মম হত্যা...

এমন বিভৎস ঘটনার পর রাসানা গ্রামের

দরিদ্র মানুষগুলো এখন ঘরছাড়া।

গেরুয়া চেতনার অন্ধ উগ্রতায়

মন্দিরকে অপবিত্র করলো ওরা।

লুণ্ঠন করলো শিশুর সম্ভ্রম,

ফলে ঈশ্বর ওদের নাম খারিজ করে দিল

মানুষের খাতা থেকে

এবং ধর্মের পাতা থেকেও। 

 

আল মাহমুদ

নূর মোহাম্মদ

 

আমি আকাশের পানে আনমনে চেয়ে থাকি

এখনো খুঁজি প্রোজ্জ্বলিত ঝলমল মুখ

জ্বলন্ত নক্ষত্রে হাসে নতুন জগৎ নতুন আকাশ

প্রতিটি নক্ষত্রই এক একজন সার্থক সফল মানুষ

কবি আল মাহমুদও তেমনি বিখ্যাত এক নক্ষত্র

এই নক্ষত্রের প্রাণের পরশ আছে আমার প্রাণেও

 

মহৎ মনের কথা আর সাগরের গভীরতা একই

মহৎ কবিতা যেন সাগরের গভীরের রতœসম

রতœ আছে বলেই তো সাগরের নাম হয় রতœাকর

তেমনি এক মহৎ রতœাকর মহান কবি আল মাহমুদ

 

আজ আল মাহমুদ এমন উদার আকাশ গভীর সাগর

যেখানে আনমনে তাকানো যায় কিংবা ডুবুরি হওয়া যায়... 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ