ঢাকা, শনিবার 21 July 2018, ৬ শ্রাবণ ১৪২৫, ৭ জিলক্বদ ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

প্রস্তুতি ম্যাচে জয় দিয়ে শুরু করল বাংলাদেশ

 স্পোর্টস রিপোর্টার : ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ শুরুর আগে একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচে জয় পেয়েছে বাংলাদেশ। ওয়েস্ট ইন্ডিজ ভাইস চ্যান্সেলর একাদশের বিপক্ষে ৪ উইকেটের জয় পেয়েছে টাইগাররা। এ ম্যাচে খেলেননি নিয়মিত অধিনায়ক মাশরাফী। ছিলেন না সহ-অধিনায়ক সাকিব আল হাসানও। দুজনের অনুপস্থিতিতে বাংলাদেশ দলকে নেতৃত্ব দেন মাহামুদউল্লাহ রিয়াদ। জ্যামাইকার স্যাবাইনা পার্কে টস জিতে আগে ফিল্ডিং বেছে নেন মাহমুদউল্লাহ। প্রতিপক্ষ দল আগে ব্যাট করে নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৯ উইকেটে ২২৭ রান করে। দলের পক্ষে ওটেলি ৫৮, হজ ৪৪ ও জাঙ্গো ৩৬ রান করেন। টাইগার বোলারদের পক্ষে ১৪ রানে ৪ উইকেট নেন মোসাদ্দেক হোসেন। জবাব দিতে নেমে ৪৩.৩ ওভারে জয় নিশ্চিত করে বাংলাদেশ। মুশফিকুর রহীম অপরাজিত ৭৫ রান করেন। ৭০ রান করেন লিটন কুমার দাস। নাজমুল হোসেন শান্তর ব্যাট থেকে আসে ৪৩ রান। ওয়েস্ট ইন্ডিজের ভাইস চ্যান্সেলর একাদশের পক্ষে ২ উইকেট নেন পাওয়েল। আগামীকাল গায়ানায় ক্যারিবিয়দের বিপক্ষে ৩ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচ খেলতে নামবে বাংলাদেশ। পরের দুই ওয়ানডে ২৫ ও ২৮ জুলাই। দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজে হোয়াইটওয়াশ হয়েছে টাইগাররা। প্রস্তুতি ম্যাচে শুরুটা কিন্তু ভালো হয়নি বাংলাদেশের। রানের খাতা না খুলে ফিরে যান এনামুল হক। তার বিদায়ের পর লিটন কুমার ও নাজমুল হোসেন শক্ত জুটি গড়েন। ১৯তম ওভারে দলীয় ১০১ রানে ফিরে যান নাজমুল ৪৩ রান করে। তারপর ২৬ রানের ব্যবধানে বাংলাদেশ হারায় আরও তিনটি উইকেট। পঞ্চম উইকেটে মোসাদ্দেক হোসেন ও মুশফিকুর রহিম ২৯ রানের জুটিতে প্রতিরোধ গড়েন। দলীয় ১৫৬ রানের মাথায় মোসাদ্দেক ফিরে গেলে আবার ২২ গজে নামেন ৪৩ রানে রিটায়ার্ড হার্ট হওয়া লিটন। মুশফিককে সঙ্গে নিয়ে লিটন দলকে জয়ের কাছাকাছি নিয়ে যান। ৬১ বলে হাফসেঞ্চুরি করে শেষ পর্যন্ত খেলেন ৭০ রানের ইনিংস। লিটন আউট হলে জয়ের জন্য অসমাপ্ত কাজটা মুশফিক করেন মেহেদী হাসান মিরাজকে নিয়ে। বাউন্ডারি মেরে দলের জয় নিশ্চিত করেন এ উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান। ৭৫ রানে অপরাজিত ছিলেন মুশফিক। তার আগে মোসাদ্দেক হোসেন ও রুবেল হোসেনের দারুণ বোলিংয়ে বেশিদূর এগোতে পারেনি ওয়েস্ট ইন্ডিজের বাছাই একাদশ। ৫০ ওভারে ৯ উইকেটে ২২৭ রান করে ক্রিস গেইল ও আন্দ্রে রাসেলকে নিয়ে গড়া দলটি। স্বাগতিকদের পক্ষে সর্বোচ্চ ৫৮ রানের ইনিংস খেলেন ইয়ানিক ওটলি। এছাড়া কাভেম হজ ৪৪, আমির জঙ্গু ৩৬ ও ক্রিস গেইল করেন ২৯ রান। স্পিন-অলরাউন্ডার মোসাদ্দেক ১৪ রানে ৪ উইকেট নিয়ে দলের সেরা বোলার। এছাড়া ৪০ রান খরচায় রুবেল নিয়েছেন ৩টি উইকেট। আবু হায়দার রনি ও মোস্তাফিজুর রহমান একটি করে উইকেট নিয়ে প্রস্তুতি সেরেছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ