ঢাকা, সোমবার 23 July 2018, ৮ শ্রাবণ ১৪২৫, ৯ জিলক্বদ ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

 টোকিও অলিম্পিক ও প্যারা অলিম্পিকের মাসকট প্রকশিত

২০২০ সালে জাপানের রাজধানীতে বসবে টোকিও অলিম্পিক ও প্যারা-অলিম্পিকের আসর। গত শনিবার  বিশ্বের সবচেয়ে বড় এ ক্রীড়া আসরের মাসকট প্রকাশিত হয়েছে। বিশ্বের সামনে দুই মাসকটকে তুলে ধরা হয়েছে সুপারহিরো হিসেবে। অলিম্পিক ম্যাসকটের নাম দেওয়া হয়েছে মিরাইতোওয়া এবং প্যারালিম্পিকের মাসকটের নাম রাখা হয়েছে সোমেইতি।

নীল-সাদা চেক পোশাকের মাসকট মিরাইতোওয়ার নামের অর্থ ভবিষ্যৎ ও অমরত্ব। বিশ্বক্রীড়াঙ্গনের ভবিষ্যৎ আরও উজ্জ্বল করে তোলার অঙ্গীকার নিয়ে বিশ্বের সামনে আত্মপ্রকাশ করল মিরাইতোওয়া। অন্যদিকে, গোলাপী-সাদা পোশাকে ঢাকা প্যারালিম্পিকের মাসকট সোমেইতির নামের বাংলা অর্থ বৈচিত্য। জাপানের বিখ্যাত চেরি গাছের অন্প্রুবেশণায় তৈরি করা হয়েছে সোমেইতিকে। জাপানিজরা মনে করেন, চেরি গাছ হচ্ছে উদারতার প্রতীক।জাপানি সংস্কৃতি ও আধুনিকতার মেলবন্ধনে এই দুই মাসকটকে তৈরি করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন আয়োজকরা। অলিম্পিকের মাসকট কেমন হবে তা বেছে দেওয়ার জন্য স্কুলে বাচ্চাদের আসরে নামিয়েছিল জাপান। অলিম্পিক কর্তারা বলছেন, মিরাতোওয়া খুব অ্যাথলেটিক। ছটফটে স্বভাবের এই মাসকট চটজলদি এক জায়গা থেকে আরেক জায়গায় চলে যায়। সোমেইতি তুলনামূলক শান্ত কিন্তু দৃঢ়। মাসকট বাছাইয়ের ক্ষেত্রে শুরু থেকেই জাপান প্রচ- খুঁতখুঁতে। যদিও জাপানের এই মাসকট প্রকাশ পাওয়ার পর অনেকে বলেছেন, সাধারণত অলিম্পিক ম্যাসকট আরও অনেক বেশি আদুরে হয়। 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ