ঢাকা, মঙ্গলবার 24 July 2018, ৯ শ্রাবণ ১৪২৫, ১০ জিলক্বদ ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

লেনদেন কমেছে ডিএসইতে

স্টাফ রিপোর্টার: ব্যাংক খাতের দাপুটে লেনদেনের পরও প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) লেনদেনের পরিমাণ কমেছে। লেনদেনের পরিমাণ কমেছে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জেও (সিএসই)। কমেছে বেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ার মূল্য। তবে উভয় শেয়ারবাজারে মূল্যসূচক কিছুটা বেড়েছে।
গতকাল সোমবার ডিএসইতে লেনদেন হওয়া মাত্র ২টি ব্যাংকের শেয়ার দাম কমেছে। বিপরীতে দাম বেড়েছে ২৬টির। এতে সূচক পতনের হাত থেকে রেহাই পেয়েছে। ব্যাংক খাত ছাড়া অন্য খাতের অধিকাংশ কোম্পানি দর হারিয়েছে। ফলে কমেছে লেনদেনের পরিমাণ।
এদিন ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেয়া ১৩০টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম আগের দিনের তুলনায় বেড়েছে। বিপরীতে দাম কমার তালিকায় স্থান করে নিয়েছে ১৬৮টি। আর ৪১টির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে।
বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের দাম কমার পরও ব্যাংক খাতের দাপুটে লেনদেনে ডিএসইর প্রধান মূল্য সূচক ডিএসইএক্স আগের দিনের তুলনায় ৮ পয়েন্ট বেড়ে ৫ হাজার ৩৪৮ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। অপর দুটি মূল্য সূচকের মধ্যে ডিএসই-৩০ আগের দিনের তুলনায় ৪ পয়েন্ট বেড়ে ১ হাজার ৯১৩ পয়েন্টে অবস্থান করছে। তবে ডিএসই শরিয়াহ সূচক ৫ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ২৬৮ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।
এদিকে ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৮৭৩ কোটি ১১ লাখ টাকা। আগের দিন লেনদেন হয় ১ হাজার ৫৪ কোটি ৯৩ লাখ টাকা। সে হিসাবে লেনদেন কমেছে ১৮১ কোটি ৮২ লাখ টাকা।
টাকার অঙ্কে ডিএসইতে সব থেকে বেশি লেনদেন হয়েছে বিবিএস কেবলস’র শেয়ার। কোম্পানিটির ৩৭ কোটি ২২ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। লেনদেনে দ্বিতীয় স্থানে থাকা পেনিনসুলা চিটাগাংয়ের ৩০ কোটি ৫৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। ২৬ কোটি টাকার শেয়ার লেনদেনে তৃতীয় স্থানে রয়েছে কেডিএস এক্সেসরিজ। লেনদেনে এরপর রয়েছে- বসুন্ধরা পেপার, নাহি অ্যালুমিনিয়াম, মুন্নু সিরামিক, স্কয়ার ফার্মাসিটিক্যাল, ড্রাগন সোয়েটার, ইফাদ অটোস এবং আমান ফিড।
এদিকে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সার্বিক মূল্যসূচক সিএসসিএক্স ২৮ পয়েন্ট বেড়ে ৯ হাজার ৯৮৯ পয়েন্টে অবস্থান করছে। তবে লেনদেনের পরিমান কমেছে। বাজারটিতে লেনদেন হয়েছে ৩৪ কোটি ১৯ লাখ টাকা। লেনদেন হওয়া ২৬০টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ১০০টির দাম বেড়েছে। বিপরীতে দাম কমেছে ১৪০টির। আর দাম অপরিবর্তিত রয়েছে ২০টির।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ