ঢাকা, বুধবার 1 August 2018, ১৭ শ্রাবণ ১৪২৫, ১৮ জিলক্বদ ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

গুইমারাতে মোবাইল কোর্টে শীলং তীর জুয়াড়ির ১৫দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড

গুইমারা (খাগড়াছড়ি) সংবাদদাতা : খাগড়াছড়ি’র গুইমারাতে ব্যাপকহারে ছড়িয়ে পড়া ইন্টারনেট ভিত্তিক জুয়া “শীলং তীর”র টাকা সংগ্রহকালে এক যুবককে আটক করে ১৫দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড দিয়েছে ভ্রাম্যমান আদালত। আটককতৃ সাইপ্রু মারমা(১৮) গুইমারা উপজেলার যৌথখামার এলাকার কংহলাঅং মারমা ছেলে।
জেলার গুইমারা উপজেলার বিভিন্ন পাড়া মহল্লায় ব্যাপক হারে ছড়িয়ে পড়া ইন্টানেট ভিত্তিক জুয়া শীলং তীর এর ভয়াবহ অবস্থা থেকে উত্তরণের লক্ষ্যে গুইমারা থানা পুলিশের শীলং জুয়া বন্ধের ধারাবাহিক অভিযানের অংশ হিসেবে ৩০জুলাই সোমবার  গুইমারা উপজেলাধীন যৌথখামার এলাকা থেকে শিলং তীর জুয়ার টাকা সংগ্রহকালে সাইপ্রু মারমা(১৮) নামের এক যুবককে আটক করেছে গুইমারা থানা পুলিশ। এসময় তার কাছ থেকে শীলং জুয়ার সীট সহ নগদ ১২২৫টাকা উদ্ধার করে পুলিশ।
পরে ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও গুইমারা উপজেলা নির্বাহী অফিসার পঙ্কজ বড়ুয়া’র ভ্রাম্যমান আদালত সুইপ্রু মারমাকে ১৫দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন। সময় গুইমারা থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন উপস্থিত ছিলেন।
গুইমারা থানার অফিসার ইনচার্জ মুহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শীলং জুয়া খেলার টাকা সংগ্রহ করার সময় আটককৃত যৌথখামার এলাকার কংলাঅং মারমা ছেলে সাইপ্রু মারমা(১৮) জুয়ার টাকা ও সীট সহ হাতে নাতে আটক করে পুলিশ। শীলং তীর নামক জুয়া গুইমারা থেকে নির্মূল না হওয়া পর্যন্ত পুলিশের অভিযান চলবে বলে জানান তিনি।
অতি সম্প্রতি ভারতীয় অনলাইন ভিত্তিক শীলং নামক এ ডিজিটাল জুয়ার মর্নিং, ইভিনিং ও নাইট নামের দিনে ৩টি ইভেন্টে এডিজিটাল জুয়ায় আসক্ত হয়ে উপজেলায় সামাজিক অবক্ষয় সহ অপরাধ প্রবনতা বৃদ্ধি পাচ্ছে। কিন্তু শীলং বন্ধের নামে গুইমারা থানা পুলিশের লোক দেখানো অভিযান বা শীলং জুয়া খেলোয়ারকে আটক করে মুল অপরাধী ও প্রভাবশালী শীলং জুয়ার এজেন্টদেরকে আড়াল করছে বলে এলাকাবাসীর দাবী। পুলিশ সহ অনেকে শীলং তীর জুয়ার এসব প্রভাবশালী এজেন্টদের কাছ থেকে সাপ্তাহিক ও মাসিক হারে মাসোহারা পায় বলে এলাকায় অভিযোগ রয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ