ঢাকা, মঙ্গলবার 7 August 2018, ২৩ শ্রাবণ ১৪২৫, ২৪ জিলক্বদ ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

গাজীপুরে পোশাক কর্মী স্ত্রীকে খুন করে পালিয়েছে স্বামী

গাজীপুর সংবাদদাতা: গাজীপুরে দাম্পত্য কলহের জেরে এক পোশাক কর্মীকে কুপিয়ে খুন করে তার স্বামী পালিয়েছে। বৃহষ্পতিবার পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করেছে। নিহতের নাম চম্পা (২৩)। সে পটুয়াখালীর গলাচিপা থানার বালির হাওলা গ্রামের নুরুল ইসলাম গাজীর মেয়ে। সে গাজীপুর জেলা সদরের এনএজেড পোশাক কারখানার চাকুরি করত। হোতাপাড়া পুলিশ ক্যাম্পের এসআই মো. সাইফুল ইসলাম ও স্থানীয়রা জানায়, গাজীপুরের শ্রীপুর উপজেলার নিজমাওনা এলাকার বাসিন্দা মো. ইসমাইলের ছেলে রফিকুল ইসলাম সঙ্গে প্রায় ১০ বছর আগে ভালবেসে বিয়ে করে চম্পাকে। এটি তাদের দ্বিতীয় বিয়ে। তারা দু’জনই একই পোশাক কারখানায় চাকুরী করতো। তাদের এ সংসারে সাত বছরের তামিম নামের এক ছেলে রয়েছে। বিয়ের কিছুদিন পর থেকে তাদের মাঝে দাম্পত্য কলহ শুরু হয়। সম্প্রতি রফিক গোপনে তৃতীয় বিয়ে করে। কিন্তু এ বিয়ের খবর প্রকাশ পেলে রফিক ও চম্পার সম্পর্কেরআরো অবনতি হয়। কয়েকমাস আগে চম্পা তার ছেলেসহ গাজীপুর সদর উপজেলার ভাওয়াল গড় ইউনিয়নের নয়নপুর এলাকায় মনু মিয়ার বাড়িতে ভাড়া বাসায় আলাদা বসবাস শুরু করে। বুধবার রাতে রফিক তার দ্বিতীয় স্ত্রী চম্পার বাসায় আসে। তাদের মাঝে বাকবিতন্ডার একপর্যায়ে রাত আড়াইটার দিকে রফিক ধারালো অস্ত্রদিয়ে চম্পাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। এতে ঘটনাস্থলেই চম্পা নিহত হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল হতে বৃহস্পতিবার ভোরে নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য শহীদ তাজউদ্দীন মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ