ঢাকা, মঙ্গলবার 7 August 2018, ২৩ শ্রাবণ ১৪২৫, ২৪ জিলক্বদ ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

‘ইউ ওয়ান্ট জাস্টিস’

চৌগাছা (যশোর) সংবাদদাতা: যশোরের চৌগাছাতেও নিরাপদ সড়কের দাবিতে মাঠে নামে শিক্ষার্থীরা। শনিবার সকাল আটটা থেকেই শহরের চৌগাছা শাহাদৎ পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ছাত্র/ছাত্রীরা শহরের মুক্তিযোদ্ধা ভাস্কর্য মোড়ে অবস্থান নেয়। এসময় তারা নানা ধরণের প্লাকার্ড বহন করছিল। ভাস্কর্য মোড়ে তারা মটরসাইকেল আরোহীদের লাইসেন্স পরীক্ষা করে। ভোগান্তিতে পড়লেও মটরসাইকেল আরোহীরা স্বতঃস্ফুর্তভাবে স্কুল শিক্ষার্থীদের তাদের কাগজপত্র দেখান। বেলা বাড়ার সাথে সাথে শিক্ষার্থীরা শহরের শনু ডাক্তারের মোড়, যশোর বাসস্টান্ডসহ কয়েকটি পয়েন্টে ছড়িয়ে পড়ে  বিভিন্ন গাড়ির কাগজপত্র দেখতে থাকে। এতে বাদ পড়েনি পুলিশ কর্মকর্তাদের গাড়িও। বাদ পড়েনি স্কুল, কলেজের শিক্ষক এমনকি সাংবাদিকরাও। সকালে শিক্ষার্থীরা ভাস্কর্য মোড়ে এবিসিডি কলেজের সহ-অধ্যাপক আবু তাহেরকে আটকে দিলে তিনি লাইসেন্স দেখিয়ে ছাড়া পান। পরে শিক্ষার্থীরা চৌগাছা মৃধাপাড়া মহিলা কলেজের সহ-অধ্যাপক ও স্থানীয় সাংবাদিক ইয়াকুব আলীর মোটরসাইকেলের কাগজপত্র না থাকায় তাকে আটকে দেয়। লক্ষণীয় বিষয় ছিল মোটরসাইকেলের চালকরা শিক্ষার্থীদের আহব্বানে সাড়া দিয়ে তাদের কাগজপত্র দেখাতে থাকেন। শনু ডাক্তারের মোড়ে একজন মোটরসাইকেল চালক তার গাড়িটি শিক্ষার্থীদের জিম্মায় রেখে নিজের বাড়িতে গিয়ে কাগজপত্র নিয়ে এসে তাদের দেখান। ভোগান্তি হলেও চালকরাও শিক্ষার্থীদের সাধুবাদ জানায়। পরে সকাল সাড়ে নয়টার দিকে স্কুলটির প্রধান শিক্ষক আজিজুর রহমানের নেতৃত্বে একটি শিক্ষক দল শিক্ষার্থীদের ক্লাশে ফিরিয়ে নিয়ে যেতে শহরে চলে আসেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ