ঢাকা, শনিবার 11 August 2018, ২৭ শ্রাবণ ১৪২৫, ২৮ জিলক্বদ ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

জয়পুরহাটে এমটিবির নৈশ প্রহরী খুন বুথ ভাংচুর

জয়পুরহাট সংবাদদাতা : জয়পুরহাট শহরের  মেইন রোডের মৌসুমী মার্কেটের নিচ তলায় মিউচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংকের এটিএম বুথের নৈশ প্রহরীকে হত্যা করে বুথ ভাংচুর করেছে ডাকাত দল। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতের কোন এক সময়ে এ ঘটনা ঘটে। শুক্রবার সকাল থেকে নৈশ প্রহরী শফিকুল ইসলাম (৩১) নিখোঁজ থাকার ১২ ঘন্টা পর পুলিশ ওই বিল্ডিং এর দ্বিতীয় তলার বাথরুম থেকে তার মৃতদেহ উদ্ধার করে । নিহত শফিকুল ইসলাম নওগাঁ  জেলার বদলগাছী উপজেলার বামনপাড়া গ্রামের মৃত- আব্দুল মোতালেবের  ছেলে।
ব্যাংক ম্যানেজার শাহ জালাল সরকার জানান,বুথ থেকে ডাকাতদল অনেক চেষ্টা করে বুথের ভোল্ট খুলতে না পারায় টাকা লুট করতে পারেনি তবে ব্যাংকের কারিগরী টেকনিশিয়ান দল না আসা পযন্ত টাকা চুরির বিষয়ে নিশ্চিত হওয়া সম্ভব নয়।
জয়পুরহাটের পুলিশ সুপার রশীদুল হাসান জানান বৃহস্পতিবার গভীর রাতে বুথের নৈশ প্রহরী শফিকুল ইসলাম প্রহরায় ছিল। শুক্রবার সকালে অপর নৈশ প্রহরী খায়রুল ইসলাম এসে বুথ বন্ধ দেখে ব্যাংক ম্যানেজার এবং পুলিশকে খবর দেয়, পুলিশ এসে দেখতে পায় বুথের ভোল্ট ভাংচুর করেছে ডাকাতরা । পুলিশ তার লাশ ময়না তদন্তের জয়পুরহাট আধুনিক জেলা হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।
এ রিপোর্ট লিখা পর্যন্ত এ ঘটনায় বিকেল ৫টায় সিআইডি সদস্যরা ঘটনা স্থল পরির্দশন করে ডাকাতি ও হত্যার ঘটনা খতিয়ে দেখছে।
লাশ উদ্ধার
জয়পুরহাট জেলা প্রশাসনের নেজারত শাখার প্রসেস সার্ভেয়ার মাহাতাবের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিখোঁজের একদিন পর সদর উপজেলার কুজিশহর গ্রামের একটি বাগান থেকে গলায় ফাঁস দেওয়া তার লাশ উদ্ধার করে। নিহত মাহাতাবের বাড়ি সদর উপজেলার দোগাছী গ্রামে।
জয়পুরহাট সদর থানার অফিসার ইনচার্জ সেলিম হোসেন জানান, বৃহস্পতিবার  বেলা ১১টায়  জেলা প্রশাসের ওই কর্মচারী চিঠিপত্র নিয়ে সদর উপজেলার খয়েরডারা গ্রামে যান। সারাদিন তাঁর সন্ধান না মিললে ওই রাতেই সদর থানায় একটি জিডি করেছেন নিহতের পরিবার। শুক্রবার সকালে সদর উপজেলার কুজিশহর গ্রামে একটি বাগানের ভিতরে গলায় ফাঁস দিয়ে গাছের সাথে বাঁধা অবস্থায় তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহতের কাছে থাকা টাকা ও অন্যান্য জিনিস পত্র অক্ষত ছিল। পুলিশ প্রাথমিক ভাবে ধারণা করছে হত্যার পর তাকে গাছের সাথে বেঁধে রাখা হয়েছে। পুলিশ তার লাশ ময়না তদন্তের জয়পুরহাট আধুনিক জেলা হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ