ঢাকা, সোমবার 24 September 2018, ৯ আশ্বিন ১৪২৫, ১৩ মহররম ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

বিএনপি-জামায়াতকে নির্বাসনে পাঠাতে হবে: ইনু

ফাইল ফটো

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক:

তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, ‘বাংলাদেশ রাষ্ট্রকে নিরাপদ করতে হলে বঙ্গবন্ধুকে হত্যার রাজনীতির ধারক বিএনপি, খালেদা, জামায়াতকে বাংলাদেশের রাজনীতি, সমাজ, নির্বাচনের বাইরে নির্বাসন দিতে হবে।’

রবিবার দুপুরে খুলনায় বাংলাদেশ বেতার কার্যালয় প্রাঙ্গণে বঙ্গবন্ধু স্মৃতিভাস্কর্য উন্মোচনকালে তিনি একথা বলেন।

তথ্য প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট তারানা হালিম, খুলনার সংসদ সদস্য মুহাম্মদ মিজানুর রহমান, তথ্য সচিব আব্দুল মালেক, বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়া, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শেখ হারুনুর রশীদ ও অনুষ্ঠানের সভাপতি বাংলাদেশ বেতারের মহাপরিচালক নারায়ণ চন্দ্র শীল বক্তব্য রাখেন। 

প্রধান অতিথির বক্তব্যে তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘যে বাংলাদেশ আজ আলোর পথে হাঁটছে, তাকে আর পেছনে যেতে দেবো না। দেশে আজ সন্ত্রাস, মাদক ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ চলছে। মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ও মাপকাঠি দিয়ে বাংলাদেশে যা ঘটছে, তা পরীক্ষা করে নিতে হবে। পরীক্ষায় পাস করলে তা গ্রহণ করবো, নইলে তা প্রত্যাখ্যান করবো।’

ইনু বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি। বঙ্গবন্ধু মানে বাংলাদেশ। বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ রাষ্ট্রের আত্মা। বঙ্গবন্ধু হত্যা হাজার বছরের ইতিহাসে সবচাইতে বড় ট্র্যাজিডি, শোকাবহ ঘটনা। হাজার বছরের ইতিহাসের সবচাইতে জঘন্য বিশ্বাসঘাতকতা, বেঈমানী। সবচাইতে ঘৃণ্য পৈশাচিক রাজনৈতিক হত্যাকাণ্ড।’

‘মুক্তিযুদ্ধ বিরোধী শক্তি তাদের পরাজয়ের প্রতিশোধ নিতেই বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করেছিল’ উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, ‘তারা বাংলাদেশের আত্মাকেও হত্যা করতে চেয়েছিল। খালেদা, বিএনপি ও জামাত বঙ্গবন্ধুকে হত্যার রাজনীতি বহন করছে, তাই বাংলাদেশ রাষ্ট্রের বিরুদ্ধে যুদ্ধ জারি রেখেছে।’ 

তিনি বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু হলেন বাংলাদেশের এপিঠ-ওপিঠ। বঙ্গবন্ধু একটি পতাকা, তিনি একটি দেশ, তিনি একটি রাষ্ট্র, তিনি এক বিপ্লব, তিনি একটি অভ্যুত্থান। বাংলাদেশ রাষ্ট্রকে নিরাপদ রাখতে হলে মুক্তিযুদ্ধের চেতনাবিরোধী শক্তি, সন্ত্রাসী ও জঙ্গিবাদের দোসরদের প্রত্যাখ্যান করতে হবে।’-ইউএনবি

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ