ঢাকা, মঙ্গলবার 14 August 2018, ৩০ শ্রাবণ ১৪২৫, ২ জিলহজ্ব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

খুলনায় এএসআই ও কনস্টেবলসহ ৫ জন গ্রেফতার

খুলনা অফিস: খুলনার এপিবিএন’র এএসআই আব্দুল্লাহ আল মামুন ও বাগেরহাট সিআইডির কনষ্টেবল সোহানুর রহমানসহ ৫ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এ সময় তাদের কাছ থেকে এক হাজার ৫০ পিস ইয়াবা ও ৬ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার করা হয়েছে। গত নগরীর খালিশপুর থানা পুলিশ আইজ্যার মোড় এলাকায় এ অভিযান চালানো হয়। গ্রেফতারকৃত অপর তিনজন হলেন সোনালী জুট মিলের কর্মকর্তা মেহেবুব বিন আফতাব, নাহিদ শেখ ও সোহেল বেগ। খালিশপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোশাররফ হোসেন জানান, নগরীর আইজ্যার মোড় এলাকায় এপিবিএন এর এএসআই এএসআই আব্দুল্লাহ আল মামুন ও সোনালী জুট মিলের কর্মকর্তাকে সন্দেহজনকভাবে ঘোরাফেরা করতে দেখে খালিশপুর থানা পুলিশ তাদের দুইজনকে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারের পর জানা যায়, আব্দুল্লাহ আল মামুন এএসআই। তার সাথে থাকা মেহেবুব বিন আফতাব সোনালী জুট মিলের কর্মকর্তা। তাদের দু’জনকে তল্লাশী করে এক হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। তাদের জিজ্ঞাসাবাদের পর খানজাহান আলী থানার যোগীপোল এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয় বাগেরহাট সিআইডিতে কর্মরত কনস্টেবল এসএম সোহানুর রহমান, তার সহযোগী নাহিদ শেখ ও সোহেল বেগকে। তাদের কাছ থেকে ৫০ পিস ইয়াবা ও ৬ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় মামলা দায়ের হয়েছে বলে জানান এই কর্মকর্তা। পরে গ্রেফতারকৃতদের আদালতে প্রেরণ করা হয়। অপরদিকে শুক্রবার সকালে খুলনা জেলা গোয়েন্দা পুলিশ ডুমুরিয়া এলাকা থেকে ১৩০  বোতল ফেন্সিডিলসহ আন্তঃজেলা মাদক চক্রের ৫ সদস্য গ্রেফতার করেছে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ডুমুরিয়া থানাধীন আঠারো মাইল সেঞ্চুরী ফিলিং ষ্টেশন এর সামনে পাকা রাস্তার উপর থেকে জেলা ডিবি একটি টিম একটি ব্যাটারী চালিত ভ্যান ঘেরাও করে। এ সময়ে গোয়েন্দা পুলিশ সাতক্ষীরার আশাশুনির মো. সোলাইমান হোসেন গাজী (২৫), পিরোজপুরের ভা-ারিয়ার মো. আসাদুজ্জামান মিঠু (৩৯), সাতক্ষীরার মো. সাদ্দাম মোল্যা (২৫), মো. সাইফুল্লাহ শেখকে (২৬) গ্রেফতার করেন। এ সময়ে তাদের অন্য সহযোগী আসামীরা দৌড়ে পালিয়ে যায়। ডিবি পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত সাক্ষীদের সম্মুখে উক্ত ব্যাটারী চালিত ভ্যানের পাটাতনের নাট খুলিয়া পাটাতনের নীচে বিশেষ কায়াদায় সেটিং অবস্থায় সর্বমোট ১৩০ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধার করেন। এ ব্যাপারে পুলিশ পরিদর্শক গোপাল চন্দ্র রায় বাদী হয়ে ডুমুরিয়া থানায় ১৯৯০ সালের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের ১৯(১) টেবিলের ৩(খ)/২৫  ধারায় মামলা দায়ের করেন। এদিকে তেরখাদায় পূর্ব বাংলার কমিউনিষ্ট পাটির আঞ্চলিক কমান্ডারসহ তালিকাভূক্ত সন্ত্রাসী গ্রেফতার করেছে গোয়েন্দা পুলিশ বিশেষ অভিযানে তেরখাদা থানা এলাকা হতে অস্ত্র ও গুলীসহ পূর্ব বাংলার কমিনিষ্ট পাটির আঞ্চলিক কমান্ডার এবং খুলনা জেলার ডিএসবি তালিকাভূক্ত সন্ত্রাসীকে গ্রেফতার করেছে। বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয় যে, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে, ৯ আগস্ট  ভোর ৫টায় বিশেষ অভিযান চালিয়ে তেরখাদা থানাধীন আনন্দনগর গ্রামের কাটাখাল এর গোড়া নামক স্থানে শওকত এর চায়ের দোকানের সামনে থেকে মো. আক্তারুজ্জামান ওরফে হায়দার (৬৫) ও মশিউর রহমান ওরফে পলাশের (৪৫) কাছ থেকে একটি দেশীয় লোহার ও কাঠের তৈরি শটগান এবং একটি লোহার পি শার্টারগান ও দু’টি বন্দুকের কার্তুজ উদ্ধার করেন।  এ ব্যাপারে তেরখাদা থানায়  ১৮৭৮ সালের অস্ত্র আইনের ১৯(অ)/(ঋ) ধারায় মামলা হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ