ঢাকা, বৃহস্পতিবার 16 August 2018, ১ ভাদ্র ১৪২৫, ৪ জিলহজ্ব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

শহিদুলকে মুক্তি দিতে রুশনারা ও রুপা হকের আহ্বান

স্টাফ রিপোর্টার: কারাবন্দী ফটোগ্রাফার ড. শহিদুল আলমের মুক্তি দাবি করেছেন বৃটিশ পার্লামেন্টের দুজন এমপি। তারা হলেন রুশনারা আলি ও রুপা হক। এ দুজনই বাংলাদেশী বংশোদ্ভূত। তারা দুজনেই সুপরিচিত ফটোসাংবাদিক শহিদুল আলমকে মুক্তি দিতে বাংলাদেশ সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। এর মধ্যে বৃটেনের বেথনাল গ্রিন অ্যান্ড বো আসনে পার্লামেন্ট সদস্য রুশনারা আলি। তিনি শহিদুল আলমের মত প্রকাশের ও ন্যায়সঙ্গত আচরণের অধিকারের প্রতি সম্মান দেখাতে আহ্বান জানিয়েছেন।
এ বিষয়ে রুশনারা আলি একটি বিবৃতি দিয়েছেন। তাতে তিনি বলেছেন, আমার সংসদীয় আসন থেকে বহু মানুষের আবেদন পেয়েছি। তারা শহিদুল আলমের বন্ধু। তাকে গ্রেপ্তার করার পর থেকে তারা সহযোগিতা চাইছেন এবং অবিলম্বে তার মুক্তি আহ্বান করছেন। আলিং সেন্ট্রাল অ্যান্ড একটনের এমপি রুপা হক এ বিষয়ে বাংলাদেশী হাই কমিশনার ও বৃটিশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে একটি চিঠি লিখেছেন। এতে তিনি শহিদুল আলমের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহার করতে বাংলাদেশ সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। রুপা হক লিখেছেন, অনুগ্রহ করে আপনাদের ক্ষমতা প্রয়োগ করে তার (শহিদুল) বিরুদ্ধে আনা মামলা প্রত্যহারে বাংলাদেশ সরকারের প্রতি আহ্বান জানান। তার পরিবার, বন্ধুবান্ধব, বাংলাদেশে প্রতিবাদে তার অনুসারীরা ও বিদেশে তার অনুসারীরা এবং আমি সবচেয়ে বেশি উদ্বিগ্ন, তাকে যে অবস্থায় আদালতে উপস্থাপন করা হয়েছে তা নিয়ে।
উল্লেখ্য, ফেসবুকে একটি ভিডিও পোস্ট করা ও আল জাজিরাকে ঢাকার নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের বিষয়ে সাক্ষাৎকার দেয়ার কয়েক ঘণ্টার মধ্যে ৫ আগস্ট ধানমন্ডিতে তার বাসা থেকে শহিদুলকে তুলে নিয়ে যায় আইন প্রয়োগকারীরা। ৬ আগস্ট তার বিরুদ্ধে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের অধীনে ৫৭ ধারার মামলা করে রিমান্ডে নেয়া হয়। শহিদুল আলম নিজে অভিযোগ করেছেন, তাকে নিরাপত্তা হেফাজতে নির্যাতন করা হয়েছে। তবে পুলিশ এ অভিযোগ অস্বীকার করেছে। তখন থেকেই স্থানীয় পর্যায়ে ক্ষোভ সৃষ্টি হয়েছে। আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ও শহিদুল আলমের প্রতি সমর্থন বাড়াচ্ছে। সারা বিশ্বের সাংবাদিকরা তার মুক্তি দাবি করছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ