ঢাকা, শনিবার 18 August 2018, ৩ ভাদ্র ১৪২৫, ৬ জিলহজ্ব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

টঙ্গীতে বুদ্ধি প্রতিবন্ধী স্কুল ভেঙ্গে গুড়িয়ে দিল সন্ত্রাসীরা

টঙ্গী সংবাদদাতা : টঙ্গীতে বুদ্ধি প্রতিবন্ধী স্কুল ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেওয়ার ঘটনায় জড়িতদের বিচারের দাবি জানিয়েছেন স্কুলটির প্রতিষ্ঠাতা নারী উদ্যোক্তা আফরোজা আক্তার বেবী। তিনি গতকাল শুক্রবার টঙ্গী প্রেসক্লাবে এক সাংবাদিক সম্মেলনে এ দাবী জানান। এ ঘটনায় থানায় অভিযোগ দেওয়ার ৫ দিন অতিবাহিত হওয়ার পরও পুলিশ মামলা নিতে গড়িমসি করছে বলে অভিযোগ করেন তিনি।
বেবী বলেন, আমার একটি মেয়ে বুদ্ধি প্রতিবন্ধী। টঙ্গী তথা গাজীপুর এমনকি আশপাশের কোন এলাকায় বুদ্ধি প্রতিবন্ধীদের মানসিক বিকাশের জন্য কোন প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠেনি। আমার সামর্থ না থাকায় প্রতিবন্ধী সন্তানটিকে দূরে কোথাও ভর্তি করতে পারিনি। একই কারণে আমার মতই আরো অনেকের প্রতিবন্ধী সন্তান উপযুক্ত শিক্ষা ও পরিচর্চা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। এসব বিবেচনায় একজন নারী হয়েও সীমিত সামর্থ নিয়ে বুদ্ধি প্রতিবন্ধীদের মানসিক বিকাশ, উপযুক্ত চিকিৎসা ও পরিচর্চা দেওয়ার লক্ষ্যে ‘বুদ্ধি বিকাশ প্রতিবন্ধী স্কুল’ প্রতিষ্ঠা করি। বিগত ২০১৬ সালে টঙ্গীর দত্তপাড়ায় বনমালা আলাউদ্দিন রোডে হারুনের বাড়ি ভাড়া নিয়ে স্কুলের কার্যক্রম শুরু করি।
গত ১৩ আগস্ট গাজীপুর মহানগর যুবলীগ নেতা পলাশের নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী স্কুলে আকষ্মিক হামলা চালায়। সন্ত্রাসীরা স্কুলের অবকাঠামো ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয় এবং যাবতীয় আসবাবপত্র লুটে নেয়।
তিনি সাংবাদিকদের আরো বলেন, গত গাজীপুুর সিটি নির্বাচনে সংরক্ষিত মহিলা আসনে প্রার্থী হওয়ায় তিনি প্রতিহিংসার শিকার হয়েছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ