ঢাকা, রোববার 19 August 2018, ৪ ভাদ্র ১৪২৫, ৭ জিলহজ্ব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

চৌদ্দগ্রামে বৈঠককালে জামায়াতের ৯ নেতাকর্মী আটক

 

চৌদ্দগ্রাম (কুমিল্লা) সংবাদদাতা : কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে বৈঠককালে জামায়াতের ৯ নেতাকর্মীকে আটক করেছে পুলিশ। গতকাল শনিবার তাদের বিরুদ্ধে বিশেষ ক্ষমতা আইনে একটি মামলা শেষে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়। আটককৃতরা হচ্ছে- উপজেলার কাশিনগর ইউনিয়নের সাতবাড়িয়া দাতামার মৃত আলতাফ আলীর পুত্র আকতারুজ্জামান (৬৩), আনু মিয়ার পুত্র দেলোয়ার হোসেন (৩৫), আনছার আলীর পুত্র মোতাহের হোসেন (৩৫), জামাল উদ্দিন (৪০), মৃত বজলুর রহমানের পুত্র আনিছুল হক (৫৮), ফজলে আলীর পুত্র হাজী ফজর আলী (৭০), বলহরা গ্রামের মৃত আবদুল লতিফের পুত্র আবদুল হাই (৩৫), গুণবতী ইউনিয়নের ঝিকড্ডা গ্রামের আলম ভুঁইয়ার পুত্র রুবেল (৩৬) ও কোতয়ালীর অশোকতলার লিয়াকত আলীর পুত্র কবির হোসেন (৩৪)। থানার এসআই শরীফুল ইসলাম বাদি হয়ে মামলাটি করেন।  মামলায় পুলিশ দাবি করে, দেশের শান্ত পরিস্থিতিকে অশান্ত করতে জামায়াতের লোকজন শুক্রবার গোপন বৈঠককালে পুলিশ অভিযান চালায়। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে জামায়াতের নেতাকর্মীরা ইটপাটকেল নিক্ষেপ করলে পুলিশের দুই সদস্য আহত হন। ঘটনাস্থল থেকে নয় নেতাকমী ও একটি প্রাইভেট কার আটক করা হয়।

এদিকে জামায়াতের নেতাকর্মীদের গ্রেফতারের তীব্র নিন্দা প্রকাশ ও তাঁদের নিঃশর্ত মুক্তি দাবি করেছেন চৌদ্দগ্রামের সাবেক এমপি ও জামায়াতের কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদের সদস্য ডাঃ সৈয়দ আবদুল্লাহ মোঃ তাহের, কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা জামায়াতের আমীর আবদুস সাত্তার, চৌদ্দগ্রাম উপজেলা দক্ষিণ শাখার আমীর মাহফুজুর রহমান। পৃথক বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, সরকার সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে ঈদের আগে জামায়াত নেতাকর্মীদের গ্রেফতার করেছে। অবিলম্বে নেতাকর্মীদের নিঃশর্ত মুক্তি দাবি ও সরকারকে হীন উদ্দেশ্য থেকে ফিরে আসার আহ্বান জানান নেতৃবৃন্দ।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ