ঢাকা, সোমবার 20 August 2018, ৫ ভাদ্র ১৪২৫, ৮ জিলহজ্ব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

সড়ক দুর্ঘটনা : হতাহত ১৭

কালীগঞ্জ(ঝিনাইদহ) সংবাদদাতা: ঝিনাইদহে আলাদা সড়ক দুর্ঘটনায় ১ জন নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে কমপক্ষে ১৫ জন। কালীগঞ্জ থানার ওসি মিজানুর রহমান জানান, দুপুরে কুষ্টিয়া থেকে রূপসা পরিবহনের একটি বাস যশোর যাচ্ছিল। পথে ঝিনাইদহ-যশোর মহাসড়কের কেয়াবাগান নামক স্থানে পৌছলে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশের খাদে পড়ে যায়। এতে বাসে থাকা যাত্রীদের মধ্যে ১৫ জন আহত হয়। আহতদের উদ্ধার করে কালীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও স্থানীয় বিভিন্ন ক্লিনিকে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। বর্তমানে ওই সড়কে যান চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে। অপরদিকে ঝিনাইদহ সদরের সাধুহাটি গালর্স স্কুল এলাকায় সড়ক দুর্ঘটনায় অজ্ঞাত (৪৫) এক ব্যক্তি নিহত হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার ভোররাতে। তবে নিহতের নাম পরিচয় জানা যায়নি।
ঝিনাইদহ সদর থানার ওসি এমদাদুল হক শেখ জানান, রাতে জেলা সদরের ঝিনাইদহ-চুয়াডাঙ্গা সড়কের সাধুহাটি গালর্স স্কুলের পাশে সড়কের উপর ক্ষত বিক্ষত একটি মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দেয়। পরে টহল পুলিশ সেখানে গিয়ে মরাদেহ উদ্ধার করে। রাতে ট্রাক অথবা বাসের চাপায় সে নিহত হতে পারে বলেও জানান ওসি। লাশ ময়না তদন্তের জন্য ঝিনাইদহ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।
চুয়াডাঙ্গা
চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার ভালাইপুরে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় নজির হোসেন (৬৮) নামে এক বৃদ্ধ নিহত হয়েছে। বৃহ¯পতিবার (১৬ আগস্ট) রাতে সদর উপজেলার ভালাইপুর হঠাৎপাড়ায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। নজির হোসেন হঠাৎপাড়ার বাসিন্দা।
প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, রাতে বাড়ি থেকে বের হয়ে পার্শ্ববর্তী ভালাইপুর বাজারে যাচ্ছিলেন নজির হোসেন।
এ সময় চুয়াডাঙ্গা শহর থেকে ছেড়ে আসা একটি মোটরসাইকেল তাকে ধাক্কা দিলে নজির হোসেন গুরুতর আহত হন।
এ অবস্থায় স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের নিলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
চুয়াডাঙ্গা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেলোয়ার হোসেন খাঁন জানান, অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ