ঢাকা, রোববার 26 August 2018, ১১ ভাদ্র ১৪২৫, ১৪ জিলহজ্ব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

ইন্দুরকানীতে বড় ভাইয়ের পা কেটে বিচ্ছিন্ন করল ছোট ভাই

ইন্দুরকানী সংবাদদাতা : ইন্দুরকানীতে দুই সহোদর মাদক ব্যবসার টাকা ভাগভাগি নিয়ে দ্বন্দ্বে বড় ভাইয়ের পা কুপিয়ে বিছিন্ন করার অভিযোগ ছোট ভাইয়ের বিরুদ্ধে। এঘটনায় এলাবাসীর সহায়তায় ছোট ভাইকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শনিবার দুপুরে মাদক ব্যবসায়ীর বাড়ির সামনেই কমিউনিটি পুলিশিংয়ের সভায় এলাকাবাসী দুই ভাইয়ের বিচার দাবি করেছেন।

স্থানীয় ও থানা সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার উপজেলার যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন পাড়েরহাট ইউনিয়নের দড়িচর বাড়ৈখালী গ্রামের হেমায়েত হাওলাদারের ছোট ছেলে চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী ডালিম হাওলাদার ও তার বড় ভাই সেলিম হাওলাদারের সাথে মাদক ব্যবসার টাকা ভাগাভাগি নিয়ে কথার কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে ছোট ভাই ডালিম বড় ভাই সেলিমকে এলোপাথারি ভাবে কুপিয়ে রক্তাক্ত করে এবং বাম পা বিচ্ছিন্ন করে ফেলে। পরে  স্থানীয়রা ছোট ভাই ডালিমকে ধরে পুলিশে সোপর্দ করে। এবং  বড় ভ্ইা সেলিমকে  উদ্ধার করে প্রথমে পিরোজপুুর সদর  হাসপাতালে নেয়ার পর অবস্থার অবনতি হলে পরে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। 

শনিবার সরেজমিনে গেলে এলাকাবাসী ওই দুই মাদক ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে অভিযোগ করেন। তারা এলাকাবাসীকে জিম্মি করে ভয়ভীতি দেখিয়ে অবাধে মাদক ব্যবসা করে আসছে। দুই ভাইয়ের মাদক ব্যবসার টাকা ভাগাভাগির জেরেই এ ঘটনা ঘটেছে। 

উপজেলা আ’লীগের সদস্য ও ওই এলাকার বাসিন্দা আলম হাওলাদার জানান, দুই ভাইয়ের মাদক ব্যসার টাকা নিয়ে দ্বন্দ্বে এ ঘটনা ঘটেছে। ওই গ্রামের বাসিন্দা মাসুম হাওলাদার জানান, ভাই ভাই মাদক ব্যবসার টাকা নিয়ে ভাগাভাগির দ্বন্দ্বে ছোট ভাই ডালিম বড় ভাই সেলিমের পা কেটে ফেলেছে। 

স্থানীয় ইউপি সদস্য আলতাফ হোসেন জানান, দুই ভাই চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী। তাদের উভয়ের দ্বন্দ্বে এ ধরনের ঘটনা ঘটেছে বলে লোকমুখে শুনেছি। মাদক ব্যবসায়ী সেলিমের মা ফজিলা বেগম জানান, এলাকাবাসী পূর্ব শত্রুতার জের ধরে আমার ছেলের পা কেটে ফেলে রেখে যায়। 

পাড়েরহাট ইউপি চেয়ারম্যান গোলাম সরোয়ার বাবুল জানান, ডালিম ও সেলিম দুই ভাই মাদক ব্যবসায়ী। আর তাদের দ্বন্দ্বের কারণে ছোট ভাই বড় ভাইয়ের পা কেটে ফেলেছে। 

ইন্দুরকানী থানার ওসি নাসির উদ্দিন জানান, দুই ভাই চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী। মাদকের টাকা ভাগাভাগি নিয়ে দ্বন্দ্বে  ছোট ভাই বড় ভাইয়ের পা কেটে ফেলেছে। মাদক ব্যবসায়ী ডালিমের বিরুদ্ধে ইন্দুরকানী থানায় ৫টি মাদক মামলার ২টিতে এবং সেলিমের বিরুদ্ধে ২টি মাদক মামলার ১টিতে গ্রেফতারি পরোয়ানা রয়েছে। ডালিমকে শনিবার তার বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলায় আটক দেখিয়ে আদালতে পাঠানো হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ