ঢাকা, বৃহস্পতিবার 30 August 2018, ১৫ ভাদ্র ১৪২৫, ১৮ জিলহজ্ব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

চুয়াডাঙ্গায় জামায়াত নেতা আহাম্মেদ জালালের জানাযা শেষে অশ্রুশিক্ত নয়নে চির বিদায়

জামায়াত নেতা আহাম্মেদ জালালের নামাযে জানাযার একাংশ

চুয়াডাঙ্গা সংবাদদাতা : জামায়াতে ইসলামীর চুয়াডাঙ্গা জেলা শুরা সদস্য ও আলমডাঙ্গা উপজেলা পশ্চিম (গাংনী) সাংগঠনিক থানা আমীর ডাঃ আহাম্মেদ জালাল (৫৭) এর নামাজে জানাযা শেষে দাফন সম্পন্ন হয়েছে। গতকাল সকাল ৯টায় স্থানীয় হাটবোয়ালিয়া স্কুল এ্যান্ড কলেজ মাঠে তার জানাযা শেষে স্থানীয় কবরস্থানে দাফন করা হয়। উল্লেখ্য,মঙ্গলবার বিকাল ৪ টার দিকে আলমডাঙ্গা উপজেলার হাটবোয়ালিয়া বাজারের নিজ চেম্বারে ষ্ট্রোকে আক্রান্ত হলে তাকে তাৎক্ষনিক চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন। মৃতকালে তিনি স্ত্রী ২ পুত্র,১ কন্যাসহ অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন। দেড় ডজন হয়রানিমুলক মামলায় সদ্য কারামুক্ত ডাঃ জালাল ব্যক্তি জীবনে একজন পল্লী চিকিৎসক হবার কারনে তার ছিল এলাকায় পরোপকারী ডাক্তার হিসেবে ব্যাপক জনপ্রিয়তা। তিনি সর্বশেষ অনুষ্ঠিত আলমডাঙ্গা উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে জামায়াতে ইসলামী মনোনীত ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন।
তার জানাযায় চুয়াডাঙ্গা, মেহেরপুর,কুষ্টিয়া ও ঝিনাইদহের জামায়াত নেতৃবৃন্দ ছাড়াও জেল জীবনের অসংখ্যসাথী, সহযোদ্ধা, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মী, সামাজিক নেতৃবৃন্দ্ব ও পার্শ্ববর্তী এলাকার হাজার হাজার মুসল্লীকে অশ্রুশিক্ত নয়নে উপস্থিত হতে দেখা যায়। এক পর্যায়ে হাটবোয়ালিয়া স্কুল এ্যান্ড কলেজের বিরাট মাঠ কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে গেলে মানুষ বাজারের অলিতে গলিতে দাড়িয়ে তার জানাযায় শরীক হন। জানাযা পূর্ব সমাবেশে মরহুমের স্মৃতি চারণ করে বক্তব্য রাখেন-জেলা জামায়াতের আমীর আনোয়ারুল হক মালিক,নায়েবে আমীর ও উপজেলা চেয়ারম্যান মাওলানা আজিজুর রহমান,কুষ্টিয়া জেলা আমীর অধ্যক্ষ আলী মহসিন,জেলা সেক্রেটারী এ্যাডঃ রুহুল আমিন,এ্যাডঃ মোসলেম উদ্দীন,মরহুমের ভাই বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল কাশেম,উপজেলা বিএনপির সভাপতি শহিদুল কাউনাইন টিলু,সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ডাঃ হুমায়ুন কবীর,স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামীলীগের তথ্য সম্পাদক কাওছার আহাম্মেদ বাবলু,বিএনপি নেতা ছানোয়ার হোসেন লাড্ডু,উপজেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক ইয়াকুব আলী মাষ্টার,আওয়ামীলীগ নেতা ও জেলা পরিষদ সদস্য আসাদুল হক ঠান্ডু,অধ্যক্ষ আব্দুস সাত্তার ও অধ্যক্ষ মাওলানা লুৎফর রহমান প্রমু। জানাযা শেষে তাকে স্থানীয় কবর স্থানে দাফন করা হয়।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ