ঢাকা, মঙ্গলবার 4 September 2018, ২০ ভাদ্র ১৪২৫, ২৩ জিলহজ্ব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

যতই নির্বাচন এগিয়ে আসছে ততই সরকার বেপরোয়া হয়ে জুলুম-নির্যাতন শুরু করেছে -মাওলানা এটিএম মা’ছুম

যশোর জেলা শাখা জামায়াতে ইসলামীর সাবেক আমীর মাওলানা আজিজুর রহমান ও সাবেক এমপি মুহাদ্দিস আবু সাঈদসহ যশোর জেলা শাখা জামায়াতের নেতৃবৃন্দের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের এবং কুষ্টিয়া জেলার কুমারখালী উপজেলা জামায়াতের আমীর অধ্যাপক আবদুল মান্নানকে গত ২ সেপ্টেম্বর রাতে পুলিশের অন্যায়ভাবে গ্রেফতার করার ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারী জেনারেল মাওলানা এটিএম মা’ছুম বলেন, যশোর জেলা শাখা জামায়াতে ইসলামীর সাবেক আমীর মাওলানা আজিজুর রহমান ও সাবেক এমপি মুহাদ্দিস আবু সাঈদসহ যশোর জেলা শাখা জামায়াতের নেতৃবৃন্দের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের এবং কুষ্টিয়া জেলার কুমারখালী উপজেলা জামায়াতের আমীর অধ্যাপক আবদুল মান্নানকে গত ২ সেপ্টেম্বর রাতে পুলিশের অন্যায়ভাবে গ্রেফতার করার ঘটনার আমি তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। সরকার রাজনৈতিক প্রতিহিংসা চরিতার্থ করার হীন উদ্দেশ্যেই যশোর জেলা জামায়াতের নেতৃবৃন্দের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের করেছে এবং কুমারখালী উপজেলা জামায়াতের আমীর অধ্যাপক আবদুল মান্নানকে অন্যায়ভাবে গ্রেফতার করেছে।
গতকাল সোমবার দেয়া বিবৃতিতে তিনি বলেন, গণআন্দোলনের ভয়ে ভীত হয়ে সরকার সারা দেশে জামায়াতে ইসলামীর নেতা-কর্মীসহ ২০-দলীয় জোটের নেতা-কর্মীদের ব্যাপকভাবে গ্রেফতার করা শুরু করেছে। গণবিরোধী সরকারের জনপ্রিয়তা শূন্যের কোঠায় নেমে গিয়েছে। তাদের পায়ের তলায় মাটি নেই। তাই যতই নির্বাচন এগিয়ে আসছে ততই সরকার বেপরোয়া হয়ে স্বৈরশাসন পাকাপোক্ত করার জন্য জুলুম-নির্যাতন শুরু করেছে। সরকারের জুলুম-নির্যাতন ও দুঃশাসনের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধভাবে গণপ্রতিরোধ গড়ে তোলার জন্য তিনি দলমত নির্বিশেষে দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানান।  তিনি আরো বলেন, জনগণের উপর জুলুম-নির্যাতন চালিয়ে অতীতে কোন সরকারই টিকে থাকতে পারেনি, বর্তমান সরকারও টিকে থাকতে পারবে না। তাই গণগ্রেফতার অভিযান বন্ধ করে যশোর জেলা জামায়াত নেতৃবৃন্দের বিরুদ্ধে দায়ের করা মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার এবং সারা দেশে জামায়াতের গ্রেফতারকৃত নেতা-কর্মীদের নিঃশর্তভাবে মুক্তি দেয়ার জন্য তিনি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ