ঢাকা, বৃহস্পতিবার 6 September 2018, ২২ ভাদ্র ১৪২৫, ২৫ জিলহজ্ব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

এশিয়া কাপে রান করার চ্যালেঞ্জ নিচ্ছেন লিটন

স্পোর্টস রিপোর্টার : এখনো বাংলাদেশ দলে ওপেনিং জুটি ঠিকমত নির্ধারিত হয়নি। তামিমের সাথে অনেককে দিয়েই চেষ্টা করানো হয়েছে, তবে তামিম এখনও পাননি তার সঠিক জুটি। বেশ কিছুদিন ধরে লিটন কুমারকে দিয়েও চেষ্টা চলছে। তবে এখনও লিটন কুমার জায়গাটা পাকা করতে পারেননি। তাই এশিয়া কাপে রান করে দলে থিতু হওয়ার চ্যালেঞ্জটা নিচ্ছেন এই ডানহাতি ব্যাটস্যান। ২০১৯ বিশ্বকাপকে সামনে রেখে এখনও তামিমের যোগ্য পার্টনারের খোঁজে বাংলাদেশ। চাওয়া একটাই তামিম ইকবালকে শুধু সমর্থন জোগানো। রানের চাকা সচল রেখে প্রতিপক্ষের আক্রমণ ভেঙ্গে দেওয়া। তবে এশিয়া কাপে সেই জায়গাটা অলংকৃত করবেন লিটন কুমার দাস। তাকে নিয়ে সব পরিকল্পনা টিম ম্যানেজম্যান্টের। অধিনায়কের পূর্ণ সমর্থন শুরু থেকে পুরো দলের আস্থা পাচ্ছেন ডানহাতি ওপেনার। তার বিশ্বাস, ওপেনিং পজিশনে চাওয়া-পাওয়ার যে ব্যবধান আছে তা পুষিয়ে দেবেন। টি-টোয়েন্টি এবং টেস্ট দলের নিয়মিত মুখ লিটন ওয়ানডে খেলেছেন ১২টি। কিন্তু বলার মতো কোনো পারফরম্যান্স নেই। তারপরও সব ঠিক থাকলে এশিয়া কাপে তামিম ইকবালের সঙ্গী হিসেবে ওপেন করার সুযোগ মিলতে যাচ্ছে লিটন দাসের। ওপেনিং পজিশনে তামিমের যোগ্য সঙ্গী নিয়ে যে হাহাকার সেটির মুক্তি মেলার দায়ও তাই লিটনের ঘাড়ে চাপছে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সর্বশেষ  খেলা টি-টুয়েন্টিতে তার ৩২ বলে ৬১ রানের ইনিংসটাই আশা সঞ্জীবনী ছড়িয়ে দিচ্ছে সবার মাঝে। ২০১৭ সালের অক্টোবরে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে সর্বশেষ ওয়ানডে খেললেও এশিয়া কাপে তার মাঝেই ওপেনিংয়ের সমাধান খোঁজা হচ্ছে। লিটন অবশ্য যে কোনো চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় তৈরি। চান সুযোগটা কাজে লাগাতে। গতকাল মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামের অনুশীলন শেষে তাই বলেন, ‘এটা আমার জন্য ভালো সুযোগ। আমি অনেক দিন ওয়ানডে দলের বাইরে। অবশ্যই এটা কাজে লাগানোর চেষ্টা করব।’ সুযোগ কাজে লাগাতে যে রান করাটাই একমাত্র ও শেষ কথা সেটি ভালো ভাবেই জানেন লিটন। তাই বলেন, ‘ভালো বলতে তো পারফর্ম ছাড়া অন্য কিছু নেই। আপনারাও রান চান, আমরাও রান চাই। ভালো করতে চাই।’ এশিয়া কাপটাই হতে পারে তার ফেরার সেরার মঞ্চ। সুযোগটিকে বড় করে দেখছেন লিটন নিজেও। লিটন বলেন, ‘এটি আসলে একটি ভালো সুযোগ। আমি অনেক দিন থেকে ওয়ানডে দলের বাইরে। যদি সুযোগ পাই তাহলে অবশ্যই ভালো করার চেষ্টা করবো।’ জায়গা পাকাপাকি করার ব্যাপারে বড় কোনো চিন্তা নেই তার। এশিয়া কাপের দুটি ম্যাচ নিয়েই তার ভাবনা, ‘নিয়মিত বলতে আসলে ব্যাপারটি অন্যরকম বোঝাচ্ছে। সামনে আমাদের এশিয়া কাপের দুটি ম্যাচ আছে। ওগুলো অনেক গুরুত্বপূর্ণ। সেখানে যদি সুযোগ থাকে ভালো করার আমি অবশ্যই চেষ্টা করবো। পারফর্ম করা ছাড়া তো আর ভালো কিছু করার নেই। আপনারা রান চান আমিও রান চাই।’ সংযুক্ত আরব আমিরাতে ১৫ সেপ্টেম্বর শুরু এশিয়া কাপে ‘বি’ গ্রুপে খেলবে বাংলাদেশ। উদ্বোধনী ম্যাচেই শ্রীলংকার মুখোমুখি হবে টাইগাররা। গ্রুপে অপর দল আফগানিস্তান। ‘এ’ গ্রুপে ভারত, পাকিস্তানের সঙ্গে খেলবে বাছাই পেরিয়ে আসা একটি দল। আজ মিরপুরে শেষ দিনের মতো অনুশীলন করবে বাংলাদেশ দল। দু’দিন বিরতি দিয়ে রোববার সংযুক্ত আরব আমিরাতের উদ্দেশ্যে ঢাকা ছাড়বে বাংলাদেশ।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ