ঢাকা, রোববার 9 September 2018, ২৫ ভাদ্র ১৪২৫, ২৮ জিলহজ্ব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

প্রতারণা

তাড়াশ (সিরাজগঞ্জ) সংবাদদাতা: সিরাজগঞ্জের তাড়াশে যুবককে মডেল বানিয়ে দেওয়ার নাম করে প্রায় তিন লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে।
এদিকে ভুক্তভোগী সেরাজুল ইসলাম নামের প্রতারিত এক যুবক টাকা ফেরত চাইতে গেলে তাকে বেধরক মারপিট করে তার ফার্নিচারের দোকান ভাংচুর করেছে কথিত ওই মডেল ও তার লোকজন।
ঘটনাটি ঘটেছে, গত শুক্রবার সন্ধায় উপজেলার নওগাঁ ইউনিয়নের নওগাঁ বাজারে।
অভিযোগ সূত্র ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ওই গ্রামের মৃত আব্দুল হালিমের ছেলে ও কথিত মডেল হাসেম আলী (৩৬) এলাকার উঠতি বয়সী ছেলেদের বিজ্ঞাপন চিত্র, নাটক ও সিনেমায় অভিনয়ের মিথ্যে আশ^াস দিয়ে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছিল।
এরই  ধারাবাহিকতায় একই গ্রামের জসমত আলীর ছেলে ব্যবসায়ী সেরাজুল ইসলামের (৩০) কাছ থেকে মডেল বানিয়ে দেওয়ার শর্তে তিন লাখ টাকা গ্রহণ করেন।
কিন্তু গত ছয় মাসেও হাসেম আলী সেরাজুলকে মডেল বানাতে না পারায় কথিত মডেলের কাছ থেকে সে তিন লাখ টাকা ফেরত চান।
এতে ও কথিত মডেল সাড়া না দেওয়ায় বিষয়টি নিয়ে একাধিকবার গ্রাম্য শালিস হয়।
এতে হাসেম টাকা ফেরত দিতে না পারায় তার নামের সোয়া আট শতাংশ জমি সেরাজুল ইসলামের নামে বায়নানামা করে দেন।
 এরপর শুক্রবার সন্ধায় নওগাঁ বাজারে সেরাজুলের ফার্নিচারের দোকানের সামনে মডেল হাসেম আসলে তিনি  জমিটি তাড়াতাড়ি তার নামে রেজিষ্টির জন্য তাকে তাগাদা দেন।
এতে মডেল হাসেম আলী ক্ষুব্ধ হয়ে লোকজন নিয়ে সিরাজুলের ওপর হামলা করে তাকে আহত করে এবং সিরাজুলের ফার্নিচারের দোকানে ভাংচুর চালায়।
একই সঙ্গে দোকান থেকে প্রায় চার লক্ষাধিক টাকা ছিনতাই করে নেয়।
এ প্রসঙ্গে তাড়াশ থানার ওসি মো. মোস্তাফিজুর রহমান জানান, বিষয়টি তিনি শুনেছেন। অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ