ঢাকা, মঙ্গলবার 11 September 2018, ২৭ ভাদ্র ১৪২৫, ৩০ জিলহজ্ব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

সূরা ফাতেহাকে কুরআনের মা বলা হয়

সম্প্রতি ৩/১৪, ব্লক- জি, লালমাটিয়া, মোহাম্মদপুর, ঢাকা শহরস্থ জৈনপুরী খানকা (দরবার) শরীফে মাসিক ইছালে ছওয়াব ও ঈদ পুনর্মিলনী উপলক্ষে এক বিশাল দুয়া ও তাফসীর মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। মাহফিলে আখেরী মুনাজাত ও তাফসীর করেন মুজাদ্দেদে জামান উপমহাদেশের আদি ও খাঁটি চার তরিকার হক্কানী মুরশিদ আল্লামা সৈয়দ মাহবুবুর রহমান জৈনপুরী পীরসাহেব কেবলা। কেন্দ্রীয় সভাপতি আলহাজ্জ মোঃ শফিকুল ইসলাম চৌধুরী সাবেক জি.এম. (ডেসকো) সাহেবের সভাপতিত্বে মোহাম্মদপুর থানা কমিটির সেক্রেটারি শেখ জহির আহমদ সাহেবের সঞ্চালনায়, নায়েবে আমির মোঃ রুহুল আমিন খান মেহেদি ও ঢাকা উত্তরের সেক্রেটারি মোঃ শহিদুল আলম সাহেবাইনের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত মাহফিলে প্রথম পর্বে মিলাদ ও মুনাজাত করেন খলিফায়ে জৈনপুরী নায়েবে আমীরে দরবার শরীফ লায়ন্স আলহাজ্জ মোঃ রুহুল আমিন সাহেব মেহমান হিসাবে বক্তব্য রাখেন, বিশিষ্ট সমাজ সেবক এডভোকেট মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেন সাহেব, দৈনিক ফলাফল পত্রিকার সম্পাদক জনাব শেখ মোঃ মুস্তাফিজুর রহমান সাহেব ও মোঃ মনোয়ার হোসাইন ভিপিবিএলডিপি। ওয়াজ করেন খলিফায়ে জৈনপুরী মাওলানা ডাঃ আব্দুস সবুর কামাল, হযরত মাওলানা মোঃ ইমদাদুল হক সাহেব, তরুণ বক্তা সৈয়দ মেশকাতুর রহমান জৈনপুরী ও মাওলানা মোঃ তোজাম্মেল হক। বয়ানে জৈনপুরী পীর সাহেব কেবলা বলেন, আল্লাহ তায়ালা সূরায়ে ফাতেহাকে উম্মুল কুরআন বা কুরআনের মা হিসাবে ঘোষণা দিয়েছেন। বহুগুনের অধিকারী হওয়ার কারণে এই সূরার বহু নাম রহিয়াছে তন্মধ্যে উম্মুল কুরআন বা কুরআনের মা হিসাবে হাদীছ ও তাফসীরে ঘোষণা করা হইয়াছে। সমস্ত কুরআনের সার তত্ত্ব বা মুল বিষয় বস্তু অত্র সূরায় রহিয়াছে বিধায় ইহাকে উম্মুল কুরআন নাম করণ করা হইয়াছে। অত্র সুরা বিহনে কোন নামায আদায় হবে না। প্রেস বিজ্ঞপ্তি

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ