ঢাকা, বুধবার 12 September 2018, ২৮ ভাদ্র ১৪২৫, ১ মহররম ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

সড়ক দুর্ঘটনায় পাকিস্তানের ড. হাসান মুরাদের ইন্তিকাল

স্টাফ রিপোর্টার : পাকিস্তানের লাহোরের ইউনিভার্সিটি অব ম্যানেজম্যান্ট এন্ড টেকনোলজি (ইউএমটি) এর প্রতিষ্ঠাতা এবং চেয়ারম্যান ড. প্রফেসর হাসান সোয়ায়েব মুরাদ সড়ক দুর্ঘটনায় ইন্তিকাল করেছেন। ইন্নালিল্লাহে ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন।
দ্যা এক্সপ্রেস টিবিউনের দেয়া তথ্য মতে, গত সোমবার পাকিস্তানের খুঞ্জরাব সীমান্তে একটি সেমিনারে অংশ নিয়ে ফেরার পথে তিনি সড়ক দুর্ঘটনায় পতিত হন। তার ছেলে সাবির আহমদও ওই দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছেন।
বিশ্বখ্যাত ইসলামিক স্কলার খুররুম জাহ মুরাদের দ্বিতীয় ছেলে প্রফেসর হাসান সোয়ায়েবে মুরাদ ব্যবস্থাপনা, দর্শন ও উদ্ভাবনী ব্যবসা অধ্যয়ন বিষয়ক বিশেষজ্ঞ ছিলেন। দীর্ঘ ২৫ বছর ধরে আর্থিক, স্পর্শকাতর এবং প্রতিরক্ষা প্রযুক্তি, মোবাইল প্রযুক্তি, নেতৃত্ব, সরবরাহ ব্যবস্থাপনা, উদ্যাক্তা এবং উদ্ভাবনীতে আন্তর্জাতিক মান সম্পন্ন সহায়তা দেয়ার জন্য সংগ্রাম চালিয়ে আসছেন।
প্রাপ্ত তথ্য মতে, স্থানীয় সময় আজ বিকাল ৫টায় ইউনিভার্সিটি অব ম্যানেজম্যান্ট এন্ড টেকনোলজি (ইউএমটি) প্রাঙ্গনে মরহুম হাসান মুরাদের নামাজে জানাযা অনুষ্ঠিত হবে।
পাকিস্তান টুডে জানিয়েছে, ড. হাসান করাচিতে জন্ম গ্রহন করেন। তিনি করাচির এনইডি ইউনিভার্সিটি অব ইঞ্জিনিয়ারিং এন্ড টেকনোলজি থেকে ব্যাচেলর ডিগ্রি লাভ করেন। তিনি ওয়াশিংটন স্টেট ইউনিভার্সিটি থেকে এমবিএ এবং যুক্তরাজ্যের ইউনিভার্সিটি অব ওয়াল্স থেকে পিএইচডি ডিগ্রি লাভ করেন।
ড. হাসান ইউনিভার্সিটি অব ম্যানেজম্যান্ট এন্ড টেকনোলজি (ইউএমটি) প্রতিষ্ঠিাতা, যেটা প্রথম ১৯৯০ সালে ইনস্টিটিউট অব লিডারশীপ এন্ড টেকনোলজি হিসেবে প্রতিষ্ঠা করেন। তিনি দেশের ভিতরে বাইরে একজন একাডেমিশিয়ান হিসেবে সমধিক পরিচিত। তিনি পাকিস্তানের একাডেমিক অঙ্গনে উদ্ভাবন, উদ্ভাবনীর সাথে পরিচিতকরণ এবং নতুন আইডিয়াতৈরির ক্ষেত্রে নিরলসভাবে কাজ করে গেছেন। তিনি ইউনেস্কোর ইন্টারন্যাশনাল এসোসিয়েশন অব ইউনিভার্সিটিস এর সদস্য।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ