ঢাকা, শুক্রবার 19 October 2018, ৪ কার্তিক ১৪২৫,৮ সফর ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

ইসরাইলি হামলার মধ্যে সিরিয়ার আকাশে রুশ বিমান নিখোঁজ

রাশিয়ার আইএল-২০ সামরিক বিমান

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক:

সিরিয়ায় ইসরাইলের কয়কটি যুদ্ধ বিমান থেকে ক্ষেপনাস্ত্র হামলার সময় রাশিয়ার একটি আইএল-২০ সামরিক বিমান নিখোঁজ হয়েছে।এ সময় বিমানটিতে ১৪ জন সামরিক কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন। রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে আল জাজিরা এ খবর দিয়েছে।

সোমবার রাতে ইহুদিবাদী ইসরাইলের চারটি এফ-১৬ যুদ্ধ বিমান যখন সিরিয়ার লাতাকিয়ায় অবস্থিত রাষ্ট্রীয় কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের ওপর হামলা চালাচ্ছিল তখন রুশ বিমানটি রাডার থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের তথ্য মতে- ইসরাইলি এফ-১৬ বিমান থেকে হামলার সময় হেমেইমিম বিমানঘাঁটির এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোলার সামরিক বিমানটির সঙ্গে যোগাযোগ হারিয়ে ফেলে। এ সময় বিমানটি সিরিয়ার উপকূল থেকে ৩৫ কিলোমিটার দূরে ভূমধ্য সাগরের উপর ছিল। এরইমধ্যে উদ্ধার ও অনুসন্ধান তৎপরতা শুরু করেছে রাশিয়া।

ইলিউশিন-২০ বিমান হচ্ছে রুশ বাহিনীর গোয়েন্দা বিমান যাতে বিশাল আকারের অ্যান্টেনা, ইনফারেড ও অপটিক্যাল সেন্সর রয়েছে। এর সাইড লুকিং এয়ারবোর্ন রাডার ও স্যাটেলাইট সিস্টেমের সাহায্যে সিরিয়ার আকাশের ওপর নজর রাখে রুশ সেনারা।  

ইহুদিবাদী ইসরাইলের কয়েকটি ক্ষেপণাস্ত্র ভূপাতিত করার বিষয়ে সিরিয়া ঘোষণা দেয়ার পর পরই রুশ বিমান নিখোঁজ হওয়ার খবর বের হয়। সিরিয়া বলেছে, তাদের বিমান প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার মাধ্যমে কয়েকটি ক্ষেপণাস্ত্র ভূপাতিত করা হয়েছে। গতরাতে ভূমধ্যসাগর থেকে লাতাকিয়ার রাষ্ট্রীয় কৌশলগত কারখানার ওপর হামলা চালানো হয়।

তবে, একজন মার্কিন কর্মকর্তা দাবি করেছেন, ইসরাইলি হামলার কবলে পড়ার পর সিরিয়ার বিমান বিধ্বংসী ব্যবস্থার আঘাতে রুশ বিমানটি ভূপাতিত হয়।তবে ঐ রুশ বিমানের আরোহীদের ভাগ্যে কী ঘটেছে তা এখনো স্পষ্ট নয়।

সিরিয়ার কর্মকর্তারা প্রাথমিকভাবে ইসরাইলি হামলার গুজবকে নিশ্চিত করেন নি। তবে পরে রুশ সূত্র থেকে বলা হয়েছে, ইসরাইলি যুদ্ধবিমান ও ভূমধ্যসাগরে অবনস্থানরত ফ্রান্সের ফ্রিগেট থেকে সিরিয়ার ওপর ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালানো হয়। রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুসারে, রাত ১০টার দিকে হামলা শুরু হয় এবং তা এক ঘণ্টা ধরে চলে। একটি বিদ্যুৎকেন্দ্র এবং দুটি সামিরক অবস্থানে হামলা চালানো হয়। 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ