ঢাকা, মঙ্গলবার 16 October 2018, ১ কার্তিক ১৪২৫, ৫ সফর ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

ইদলিব অভিযান হচ্ছে না; বাফার জোন প্রতিষ্ঠা করবে তুরস্ক-রাশিয়া

ভ্লাদিমির পুতিন (ডানে) ও রজব তাইয়্যেব এরদোগান

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক:

সিরিয়ার ইদলিব প্রদেশে একটি বেসামরিক বাফার জোন তৈরি করতে সম্মত হয়েছে রাশিয়া ও তুরস্ক। বেসামরিক বাফার জোন ১৫ থেকে ২০ কিলোমিটার বিস্তৃত হবে। আগামী ১৫ অক্টোবরের আগে এটি কার্যকর করা হবে।

গতকাল (সোমবার) রাশিয়ার কৃষ্ণসাগর উপকূলবর্তী সোচি শহরে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ও তুর্কি প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এরদোগানের মধ্যে অনুষ্ঠিত দীর্ঘ বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত হয়। সংবাদ সম্মেলনে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন জানান, রাশিয়া এবং তুরস্কের সৈন্যরা বাফার জোনে টহল দেবে।

রাশিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী সের্গেই শোইগু

রাশিয়া ও তুরস্কের মধ্যকার এই চুক্তি অনুসারে ইদলিবের বাফার জোন থেকে সমস্ত ভারী অস্ত্র প্রত্যাহার করা হবে এবং আল-কায়েদার সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত জাবহাত ফতেহ আশ-শামের সন্ত্রাসীদেরকে তুরস্ক সরিয়ে নেবে।

এদিকে, রাশিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী সের্গেই শোইগু বলেছেন, ইদলিবে কোনো সেনা অভিযানে অংশ নেবে না তার দেশ। সিরিয়ার সরকার সামিরক অভিযান বন্ধ করতে সম্মত হয়েছে কিনা -এমন এক প্রশ্নের জবাবে শোইগু বলেন, বিষয়টি নিয়ে তুরস্ক ও রাশিয়ার মধ্যে চুক্তি হয়েছে। গত কিছুদিন ধরে সিরিয়ার সেনা ও মিত্র যোদ্ধারা ইদলিব অভিযানের জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছি। ইদলিব-পার্স টুডে

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ