ঢাকা, সোমবার 24 September 2018, ৯ আশ্বিন ১৪২৫, ১৩ মহররম ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

জাতীয় ঐক্যের হ্যাডম নেই সোহরাওয়ার্দীতে সভা করার : ও কাদের

চট্টগ্রাম ব্যুরো : বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেছেন, বিএনপিসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দল নিয়ে সদ্যগঠিত রাজনৈতিক মোর্চা বৃহত্তর জাতীয় ঐক্যের সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের মতো বড় স্থানে সভা করার মতো ক্ষমতা নেই। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সোহরাওয়ার্দী উদ্যান উন্মুক্ত করে দিয়েছেন। কিন্তু তাদের হ্যাডম নেই সেখানে সভা করার।
তিনি গতকাল রোববার সকালে চট্টগ্রামের কর্ণফুলী থানার ক্রসিং এলাকায় আয়োজিত এক পথসভায় এসবকথা বলেন। নির্বাচনের আগে সাংগঠনিক সফরের অংশ হিসেবে ট্রেনের পর এবার সড়কপথে কক্সবাজারের উদ্দেশে আওয়ামী লীগের নির্বাচনী সফর শুরু হয়েছে। সেই সফরের অংশ হিসেবেই রোববার চট্টগ্রামের  বিভিন্ন স্থানে পথসভা করা হয়।
 চট্টগ্রামের কর্ণফুলী থানার ক্রসিং এলাকায় আয়োজিত   পথসভায় আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে কর্ণফুলী-আনোয়ারা আসনে প্রার্থী হিসেবে ভূমি প্রতিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদকে পরিচয় করিয়ে দেন  ওবায়দুল কাদের।  পথ সভায়  ওবায়দুল কাদের বলেন, ৩০ দল মিলে মিটিং করেছে, এখন আমাদের পথসভার বাইরে যত লোক দাঁড়িয়ে আছে সেখানে তত লোকও ছিল না। যুক্তফ্রন্ট ঐক্য প্রক্রিয়ায় যেখানেই মিটিং করতে চায় সেখানেই মিটিং করবে। প্রধানমন্ত্রী নিজেই বলেছেন যে, যেখানে সমাবেশ করতে চায় সেখানেই করুক। কিন্তু তারা বড় জায়গায় যান না। তারা পল্টনে ঢুকে যায়, নাট্যমঞ্চে ঢুকে যায়। বড় জায়গায় গেলে লোক সমাগম হবে না এই ভয়ে তারা যায় না। তারা বড় জায়গায় সমাবেশ করে না।
তিনি বলেন, ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাহেব! চট্টগ্রামের মানুষ জানে, কর্ণফুলী হচ্ছে বিএনপির ঘাঁটি! সেই ঘাঁটি দেখে যান, ভেঙে চুরমার হয়ে গেছে। কর্ণফুলী এখন আওয়ামী লীগের সঙ্গে। কর্ণফুলী এখন শেখ হাসিনার সঙ্গে।
ঐক্যবদ্ধ থাকার ওপর গুরুত্বারোপ করে নেতা-কর্মীদের উদ্দেশে ওবায়দুল কাদের বলেন, জনগণের সঙ্গে ভালো ব্যবহার করবেন। ঘরের মধ্যে ঘর করবেন না। মশারির মধ্যে মশারি টাঙাবেন না। ঐক্যবদ্ধ থাকেন।
 সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগ সভাপতিমন্ডলীর সদস্য আব্দুল মতিন খসরু, আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম হানিফ, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ, সাংগঠনিক সম্পাদক ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, একেএম এনামুল হক শামীম, চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান আবদুচ ছালাম, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোছলেম উদ্দিন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান প্রমুখ। সভাপতিত্ব করেন কর্ণফুলী থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি সৈয়দ জামাল আহমেদ।
এদিকে  শনিবার ঢাকা থেকে  প্রথম দিনের ‘রোড মার্চ’ শেষে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউসে সাংবাদিকদের  আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, আওয়ামী লীগকে বাদ দিয়ে জাতীয় ঐক্য হতে পারে না।ওবায়দুল কাদের বলেন, শনিবার বিকেলে ঢাকার মহানগর নাট্যমঞ্চে জাতীয় ঐক্য ঘোষণা করা হয়েছে শুনলাম। নেতায় নেতায় ঐক্য, ৩০ দলের ৩০ নেতা নিয়ে ঐক্য, জনগণের কোনো সম্পৃক্ততা নেই। এ ঐক্য কোনো কাজে আসবে না।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ