ঢাকা, সোমবার 15 October 2018, ৩০ আশ্বিন ১৪২৫, ৪ সফর ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

বিশ্ববিদ্যালয়ের সার্বিক উন্নয়নে এলামনাইসমূহের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ

চট্টগ্রাম ব্যুরো : ‘প্রাণের ক্যাম্পাসে পরাণে ১৯’ এই স্লোগানকে ধারণ করে দিনব্যাপী কর্মসূচি পালনের মাধ্যমে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ১৯ তম ব্যাচের এক মিলনমেলা ১২ অক্টোবর  চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে অনুষ্ঠিত হয়। এ উপলক্ষে বিকাল ৪.৩০ টায় চ.বি. ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে ভাষণ দেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী। এতে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন চবি উপ-উপাচার্য প্রফেসর ড. শিরীণ আখতার। উপাচার্য তাঁর ভাষণে ১৯ তম ব্যাচের উপস্থিত সকল সদস্য ও তাঁদের পরিবারবর্গকে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সবুজ ক্যাম্পাসে স্বাগত ও আন্তরিক শুভেচ্ছা জানান। তিনি বলেন, যে কোন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের এলামনাইরা ঐ প্রতিষ্ঠানের জন্য আশীর্বাদ স্বরূপ। এলামনইরা সুসংগঠিত হলে প্রতিষ্ঠানই লাভবান হয়। তিনি বলেন, প্রাক্তন শিক্ষার্থীরা এ বিশ^বিদ্যালয়ের প্রথিতযশা, গুণী শিক্ষক-গবেষকদের সান্নিধ্যে থেকে নিজেদের দক্ষ, যোগ্য ও আলোকিত মানুষ হিসেবে গড়ে তুলে দেশে-বিদেশে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে উচ্চতর পদে অধিষ্ঠিত থেকে এ বিশ্ববিদ্যালয় তথা দেশের সুনাম বৃদ্ধি করেছেন। পাশাপাশি তাঁরা চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক ও প্রশাসনিক কর্মকান্ডসহ ভৌত অবকাঠামো উন্নয়নে দৃশ্যমান অবদান রেখে যাচ্ছেন। প্রসঙ্গক্রমে  উপাচার্য বলেন, শুধু পঠন-পাঠনই নয় জ্ঞান-গবেষণার এক অনন্য তীর্থ স্থান চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়। এরই স্বীকৃতি স্বরূপ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় দেশের শীর্ষ বিশ্ববিদ্যালয়ে স্থান করে নিয়েছেন, এটি প্রাক্তন-বর্তমান সকল শিক্ষার্থীর জন্য আনন্দের ও গৌরবের।  উপাচার্য দেশের উন্নয়ন অগ্রগতির ধারা অব্যাহত রাখতে বিজ্ঞানমনষ্ক-আলোকিত মানবসম্পদ উৎপাদনে এলামনাই সমূহের আন্তরিক সহযোগিতা কামনা করেন।
অনুষ্ঠানে ১৯তম ব্যাচের সদস্য বিশিষ্ট বিজ্ঞানী ড. মাইনুদ্দিন সরকার বাদলকে সম্মাননা ক্রেস্ট প্রদান করা হয়। শারমিন ফয়জী ও জিন্নাত চৌধুরীর পরিচালনায় অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ১৯তম ব্যাচের সদস্য বিশিষ্ট বিজ্ঞানী সংবর্ধিত ড. মইনুদ্দিন সরকার বাদল, অনুষ্ঠান উদযাপন কমিটির আহবায়ক ফেরদৌস এবং ১৯ তম ব্যাচের সচিব জনাব এম এ মজুমদার সোহেল। পরে অনুষ্ঠিত হয় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ