ঢাকা, বুধবার 02 January 2019, ১৯ পৌষ ১৪২৫, ২৫ রবিউস সানি ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

সেলফি ভালো কোন ফোনে

জাফর ইকবাল : ফোনের বাজারে এখন চলছে সেলফি ট্রেন্ড। কোনো কোনো স্মার্টফোনে তো সেলফির জন্য একাধিক ক্যামেরাও দেওয়া রয়েছে। যুক্ত করা হয়েছে নতুন নতুন ফিচার। দেশের বাজারে পাওয়া যাচ্ছে এমন কয়েকটি সেলফি ফোন, আনুষঙ্গিক অ্যাপ ও ব্যবহারবিধি নিয়ে থাকছে এবারের আয়োজনে।
কিছুদিন আগে ২০০ কোটি ব্যবহারকারীর মাইলফলক ছুঁয়েছে ফেইসবুক। জনপ্রিয়তা বাড়ছে ইনস্টাগ্রাম, স্ন্যাপচ্যাট, টাম্বলার, টুইটারের মতো অন্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোরও। বিশ্লেষণে দেখা যায়, ছবি শেয়ার সুবিধা চালুর পর থেকেই সাইটগুলোর জনপ্রিয়তা ও ব্যবহার অনেক গুণ বেড়েছে। আর ছবি শেয়ার করার পরিমাণ কয়েক গুণ বেড়ে যায় মোবাইলে নিজের ছবি নিজে তোলার (সেলফি) সুবিধা চালু হওয়ার পর।
বিষয়টি এমন দাঁড়িয়েছে যেন সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম আর সেলফি একটি আরেকটির জনপ্রিয়তা বাড়াতে কাজ করছে। এই ব্যবসায়িক দিক বিবেচনায় নিয়ে স্মার্টফোন তৈরির প্রতিষ্ঠানগুলো এখন বেশি জোর দিচ্ছে সেলফি ফোনের দিকে। ভালো সেলফি তুলতে হলে ফোন কেনার আগে ফ্রন্ট ক্যামেরাযুক্ত ডিভাইস কিনতে হবে। দেশের বাজারে এখন এ ধরনের বেশ কয়েকটি স্মার্টফোন রয়েছে।
অপো এফ৩: মডেলটিতে নির্মাতাপ্রতিষ্ঠান বলছে, ‘সেলফি এক্সপার্ট’। ফোনটির সামনে রয়েছে ১৬ ও ৮ মেগাপিক্সেলের দুটি ক্যামেরা। ফোনটি দিয়ে উন্নত মানের একক ও দলবদ্ধ সেলফি তোলা যাবে। সেলফির ফ্রেমে বিস্তৃত জায়গা নিতে সাধারণত বিশেষ স্টিক ব্যবহার করা হলেও এই সেটে তা লাগবে না। স্বয়ংক্রিয়ভাবেই ফ্রেমের জায়গা বেড়ে যাবে। ছবিতে যথাযথ আলোর জন্য ফোনটির ১৩ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরায় যুক্ত করা হয়েছে এলইডি ফ্ল্যাশ।
অন্যান্য সুবিধার মধ্যে সেটটিতে রয়েছে এমটি৬৭৫০টি অক্টাকোর ১.৫ গিগাহার্জ প্রসেসর, ৪ গিগাবাইট র‌্যাম, তথ্য ধারণের জন্য ৬৪ গিগাবাইট স্থায়ী মেমোরি, অ্যানড্রয়েড ৬.০ অপারেটিং সিস্টেম, তিন হাজার ২০০ মিলি-অ্যাম্পিয়ার ব্যাটারি ও একসঙ্গে দুই সিম ব্যবহারের সুবিধা।
সিম্ফনির সেলফি ফোন: সেলফির জন্য বিশেষায়িত ‘পি৯’ মডেলের সেলফি ফোন বাজারে এনেছে সিম্ফনি। ডুয়েল ফ্ল্যাশলাইটের ফোনটির সামনে ও পেছনে রয়েছে সমান ১৩ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা। আরো আছে অ্যানড্রয়েড নোগাট ৭.০ অপারেটিং সিস্টেম, ৫.৫ ইঞ্চির ২.৫ ডি কার্ভ এইচডি আইপিএস ডিসপ্লে, মিডিয়াটেক ১.৩ গিগাহার্জ ৬৪ বিটের অক্টাকোর প্রসেসর, ৩ জিবি র‌্যাম, ৩২ জিবি রম এবং ৩০০০ এমএএইচ লি-পলিমার ব্যাটারি। স্মার্টফোনটি বাজারে ছাড়া হয়েছে কালো ও গাঢ় নীল রঙে।
জেনফোন সেলফি: সেলফির জন্য আসুসের বিশেষায়িত স্মার্টফোন ‘জেনফোন সেলফি’। ডুয়েল এলইডি ফ্ল্যাশসহ ১৩ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা দেওয়া রয়েছে ফোনটিতে। এই সুবিধার কারণে ফোনটি দিয়ে ভালো মানের সেলফি, সঙ্গে ১০৮০ পিক্সেলে ভিডিও রেকর্ডও করা যাবে। এর ৫.৫ ইঞ্চি ডিসপ্লের রেজুলেশন ১০৮০ বাই ১৯২০ পিক্সেল। অক্টাকোর ১.৭ গিগাহার্জ কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬১৫ চিপসেট সমৃদ্ধি ডিভাইসটিতে গ্রাফিকস সুবিধা দিতে রয়েছে অ্যাড্রেন ৪০৫ জিপিইউ। ব্যাটারি তিন হাজার মিলি অ্যাম্পিয়ারের।
স্যামসাং গ্যালাক্সি এস৮: চলতি বছর সবচেয়ে আলোচিত ফোনের নাম গ্যালাক্সি এস৮। ডিভাইসটির ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা দিয়ে খুব ভালো সেলফি তোলা যায়। দলবদ্ধ ছবি তোলার জন্য রয়েছে ওয়াইড অ্যাঙ্গেল সুবিধা। ১৪৪০ পিক্সেলে ভিডিও রেকর্ড করা যায় ফ্রন্ট ক্যামেরা দিয়েই। এর পেছনের ক্যামেরাটি ১২ মেগাপিক্সেলের। অন্যান্য ক্যামেরার তুলনায় এর ডিসপ্লে বেশ বড়, ৫.৮ ইঞ্চি। রেজল্যুশন ১৪৪০ বাই ২৯৬০ পিক্সেল। কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮৩৫ প্রসেসরযুক্ত ফোনটিতে রয়েছে ৪ গিগাবাইট র‌্যাম ও ৬৪ গিগাবাইট স্থায়ী মেমোরি। ১৫৫ গ্রাম ওজনের ফোনটিতে রয়েছে তিন হাজার মিলি অ্যাম্পিয়ার ব্যাটারি।
দামটা একটু বেশী। আইফোন ৭ প্লাস: স্মার্টফোনের ক্যামেরার বাজারে আইফোনের সুনাম রয়েছে। সেই ধারাবাহিকতায় আইফোন ৮ প্লাসের পেছনে যুক্ত করা হয়েছে ১২ মেগাপিক্সেল ডুয়েল ক্যামেরা সেটআপ। সেলফি ও ভিডিও চ্যাটের জন্য সামনে রয়েছে ৭ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা। এই ফ্রন্ট ক্যামেরা দিয়ে ১০৮০ পিক্সেলে ভিডিও রেকর্ডও করা যাবে।
ভালো সেলফির জন্য এ ছাড়া রয়েছে এইচডিআর মুড, ফেইস ডিটেকশন ও প্যানোরমা সুবিধা। এতে রয়েছে কোয়াড কোর ২.৩৪ গিগাহার্জ অ্যাপল ফিউশন এ১০ চিপসেটের প্রসেসর। গ্রাফিকস সুবিধা দিতে রয়েছে পাওয়ার ভিআর সিরিজের ৭ এক্সটি প্লাস সিক্স কোর গ্রাফিকস। ফিঙ্গারপ্রিন্ট ও পানিরোধক সুবিধাযুক্ত ডিভাইসটিতে রয়েছে দুই হাজার ৯০০ মিলি অ্যাম্পিয়ার ব্যাটারি। দাম : ৮৯ হাজার টাকা।
গুগল পিক্সেল: গুগলের পিক্সেল স্মার্টফোনের সামনে রয়েছে ডুয়েল এলইডি ফ্ল্যাশসহ ১২.৩ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা। সেলফি ও ভিডিও চ্যাটের জন্য সামনে রয়েছে ৮ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা। ভালো মানের সেলফি ওঠে ক্যামেরাটি দিয়ে। পাশাপাশি ভিডিও রেকর্ড করা যায় ১০৮০ পিক্সেলে।
৫ ইঞ্চি ডিসপ্লের ডিভাইসটির রেজল্যুশন ১০৮০ বাই ১৯২০ পিক্সেল। প্রসেসর হিসেবে ফোনটিতে রয়েছে কোয়াড কোর কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৮২১ প্রসেসর। এর ব্যাটারি দুই হাজার ৭৭০ মিলি অ্যাম্পিয়ারের। দাম : ৫৪ হাজার টাকা।
সেলফির অ্যাপ: স্মার্টফোনে কিছু অ্যাপ ইনস্টল করা থাকলে সেলফি তোলা হবে আরো উপভোগ্য। এর মধ্যে ইউক্যাম পারফেক্ট খুবই কাজের। এর বিভিন্ন টুলসের মাধ্যমে তোলা ছবির মুখের খুত ও অন্যান্য দাগ মোছা যায়। পরিবর্তন করা যায় চোখের আকার ও শরীর, রং করা যায় উজ্জ্বল।
পারফেক্ট ৩৬৫: পারফেক্ট ৩৬৫ মেয়েদের কাছে জনপ্রিয়। চাইলে এ অ্যাপের সাহায্যে ভার্চুয়াল মেক আপও করে নেওয়া যাবে। এতে তোলা সেলফি আরো সুন্দর দেখাবে। http://goo.gl/DE1D62 থেকে অ্যাপটি ডাউনলোড করা যাবে।
অ্যাপ দ্য মোমেন্ট ক্যাম: সেলফি ভিন্নভাবে উপস্থাপন করা কিংবা ছবিতে ইমোজি যোগ করতে কাজের অ্যাপ দ্য মোমেন্ট ক্যাম। ডাউনলোড ঠিকানা : http://goo.gl/qiTm6‰
যেভাবে ভালো সেলফি তুলবেন:  ক্যামেরার ফ্রেম ঠিকঠাক ধরতে হবে। ঠিক কোন অ্যাঙ্গেলে স্মার্টফোন ধরলে ফ্রেম ঠিক হবে তা বুঝতে হবে। যারা হালকা গড়নের তারা ক্যামেরা একটু নিচের দিকে ধরে ছবি তুলবেন।
স্বাস্থ্য ভালো বা মুখমন্ডল বড় হলে ক্যামেরা ওপরের দিকে তুলে মুখটা উঁচু করে ধরে ছবি তুললে ভালো আসবে। সেলফি তোলার সময় চোখের দিকে নজর দিতে হবে। অনেকে নিয়মিত চশমা পরেন, কিন্তু সেলফি তোলার সময় খুলে রাখেন! এটা ঠিক নয়। চশমা পরে তুললেই বরং ভালো ছবি পাওয়া যাবে। তবে খেয়াল রাখতে হবে, যেন চশমা সোজা থাকে। একেবারে কাছে থেকে কোনো সেলফি তুলতে চাইলে ভালো করে খেয়াল করুন যে আপনার দুটি চোখই ফ্রেমের মধ্যে আছে কি না। এমনও হতে পারে যে একটি মাত্র চোখ ফ্রেমে আরেকটি ফ্রেমের বাইরে।
 বিষয়টি গুরুত্বপূর্ণ। একেবারে সোজা হয়ে সেলফি তুললে ভালো দেখায় না। সেলফির জন্য মুখের যেকোনো একটি পাশ বাছাই করুন। একটি গালের অংশকে প্রাধান্য দিন। এ ক্ষেত্রে চিবুকটি একটু নিচু করুন।
 ফোন ধরা হাতটি যেন স্থির থাকে। নড়াচড়া করলে ছবি ঝাপসা আসতে পারে। সেলফি যেহেতু অনেক কাছ থেকে তোলা হয়, তাই দাঁত বের করে ছবি তোলা এড়িয়ে চলুন। এ ক্ষেত্রে মুখ বন্ধ করে মৃদু হাসি দিয়ে ছবিটি তোলার চেষ্টা করুন। সেলফি ভালো হওয়ার পেছনের মূল কারণ হলো আলোর সূত্র (যেমন বাল্ব বা জানালা)। যদি আলোর সূত্র পেছনে রেখে ছবি তোলেন, তাহলে সেলফি কালো আসবে। এর জন্য আলোর দিকে মুখ ফিরিয়ে মুখে লাইট নিয়ে সেলফি তোলা উচিত। দলবদ্ধ হয়ে সেলফি তোলার সময় সবচেয়ে লম্বা ব্যক্তিকে দিয়ে ছবি তোলা উচিত। যার হাতে ক্যামেরা থাকবে, সেলফি তোলার জন্য তাকে সবার সামনে এগিয়ে গিয়ে দাঁড়াতে হবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ