ঢাকা, শুক্রবার 18 January 2019, ৫ মাঘ ১৪২৫, ১১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

তাড়াশের আঞ্চলিক সড়কগুলো খানা-খন্দে ভরাঃ জনদুর্ভোগ চরমে 

তাড়াশে একটি সড়কগুলোর বেহাল দশা

শাহজাহান তাড়াশ সিরাজগঞ্জ, ১৬ জানুয়ারি : সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলা শহরের সাথে যোগাযোগ রক্ষাকারী তাড়াশের আঞ্চলিক সড়কের পিচ-পাথর উঠে এখন বেহাল অবস্থা। সরেজমিনে তাড়াশ-রানিহাট পাকা সড়কে গিয়ে দেখা গেছে, সড়কের বেশীর ভাগ অংশে পিচ,পাথর উঠে গিয়ে  বড় বড় খানাখন্দক তৈরি হয়েছে ।  সড়কতো নয় এ যেন  মরণ ফাঁদে পরিণত হয়েছে। ফলে দূর্বিসহ হয়ে পড়েছে হাজার হাজার মানুষের যাতায়াতের একমাত্র ভরসার সেই তাড়াশ-মান্নান নগড় রাস্তাটি। সরেজমিনে দেখা যায় সড়কটি দিয়ে প্রতিদিন শতশত মটর সাইকেল,বাস, ট্রাক, ট্রলি, সিএনজি, অটোরিক্সা, ভ্যান, ট্রাক্টর, সহ বিভিন্ন ধরনের ভারি যানবাহন নিয়মিত চলাচল করে থাকে। মরণ ফাঁদে পরিণত হওয়া সড়কগুলো দিয়ে এখন আর তেমন জানবাহন চলাচল করতে পারে না। এতে করে সড়কটির পাশ্বে অবস্থিত উপজেলার সবচেয়ে বড় ধানের হাঁট বিনসাড়া  এখন ক্রেতা-বিক্রেতা শূন্যপ্রায়।এতে করে কৃষক ধানের ন্যায্য মূল্য থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। এছাড়াও গবাদী পশু ক্রয়-বিক্রয়ের বড় হাট গুল্টা হাটও এখন আগের মতো  সরগরম  থাকেনা।   হাটিকুমরুল-বনপাড়া  মহাসড়কের সাথে যোগাযোগ রক্ষাকারী মান্নান নগড় থেকে তাড়াশ হয়ে রানিহাট পর্যন্ত  প্রায় ২২ কিলোমিটার পাকা সড়ক দীর্ঘদিন যাবৎ মেরামত ও নজরদারীর অভাবে অধিকাংশ স্থানে বড় বড় খানাখন্দকের সৃষ্টি হওয়ায় তাড়াশ ও বনপাড়া-হাটিকুমরুল মহাসড়কের সাথে যোগাযোগে, রানিহাট,গুল্টা,তালম,চৌড়া,গোন্তা, মানিকচাপর, পেঙ্গুয়ারী, বস্তুুল, বিনসাড়াসহ পার্শ্ববর্তী এলাকার হাজার হাজার মানুষ চলাচল করতে ভোগান্তির শিকার হচ্ছে। ঘটছে প্রতিদিনই প্রায় ছোট-বড় দূর্ঘটনা । 

তাড়াশ উপজেলার বিনসাড়া বাজারের ব্যবসায়ী ফুলচান তালুকদার,পেঙ্গুয়ারী গ্রামের আব্দুল মালেক,মানিকচাপর গ্রামের ইউনুস আলী বাবু জানান, বহুদিন হল আমরা এই (তাড়াশ-রানীহাট) সড়কটি সংস্কার করার দাবী জানালেও এখনো কোন প্রকার সংস্কার করা হয়নি।  কি কারণে  এ সড়কটি সংস্কার করা হচ্ছে না এমন প্রশ্ন তুলে ধরেন এই প্রতিবেদকের কাছে।  এ ব্যাপারে সিরাজগঞ্জ সড়ক ও জনপদ বিভাগরের  নির্বাহী প্রকৌশলী আহাদ-উল্লাহ  মান্নান গড় থেকে তাড়াশ হয়ে  রানিহাট পর্যন্ত ওই রাস্তাটির আসলেই নাজুক ও জনদুর্ভোগের অবস্থা স্বীকার করে তিনি বলেন, অল্পদিনের মধ্যেই মেরামতের কাজ শুরু করা হবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ