ঢাকা, শনিবার 19 January 2019, ৬ মাঘ ১৪২৫, ১২ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

গ্রামে আর কুঁড়েঘর পাওয়া যায় না -তথ্যমন্ত্রী

গতকাল শুক্রবার বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে মহানগর আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগ আয়োজিত বর্ধিত সভায় বক্তব্য রাখেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ এমপি -সংগ্রাম

স্টাফ রিপোটার: দেশের উন্নয়নের বর্ণনা দিয়ে তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, ‘বিমান থেকে এ দেশের ফ্লাইওভার আর গগনচুম্বী অট্টালিকা দেখে ইউরোপের মতো মনে হয়। হাতিরঝিলের সৌন্দর্য মনে করিয়ে দেয় প্যারিসের কথা, গ্রামে আর কুঁড়েঘর পাওয়া যায় না। হারিকেন আজ স্মৃতির অংশ। শেখ হাসিনার জাদুকরি নেতৃত্বে এ দেশ আজ বদলে যাওয়া বাংলাদেশ।’
আজ শনিবার রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আওয়ামী লীগের বিজয় সমাবেশ সফল করার লক্ষ্যে গতকাল শুক্রবার সকালে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে আয়োজিত এক সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তথ্যমন্ত্রী এসব কথা বলেন। বার্তা সংস্থা বাসসের এক খবরে এসব বলা হয়েছে।
ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগ আয়োজিত বর্ধিত সভায় সভাপতিত্ব করেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি হাজি আবুল হাসনাত। প্রধান বক্তা হিসেবে মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদসহ বিভিন্ন থানা ও ওয়ার্ড পর্যায়ের নেতারা সভায় অংশ নেন।
সভায় হাছান মাহমুদ দেশের মানুষ যেন আমাদের ভালোবাসে এবং আওয়ামী লীগকে দেশ পরিচালনার জন্য আবার দায়িত্ব দেয়, সে জন্য নেতাকর্মীদের আরো দায়িত্ববান হওয়ার আহ্বান জানান। তিনি বলেন, ‘কাঁধে দায়িত্ব এলে বিনয়ী ও নম্র হতে হয়, বিজয়ীর আচরণ যেন কারো বিরক্তির কারণ না হয়। বিজয়ের পর যেভাবে আমরা নেত্রীর নির্দেশ মেনে চলেছি, তা বজায় রাখতে হবে।’
এ সময় বিএনপির প্রসঙ্গ টেনে হাছান মাহমুদ বলেন, ‘২০০১ সালের নির্বাচনের পর দেশকে সন্ত্রাসের জনপদে পরিণত করা হয়েছিল। নৌকায় ভোট দেওয়ার অপরাধে আট বছরের শিশুকেও ধর্ষণ করা হয়েছিল, গ্রামছাড়া হয়েছিল বহু পরিবার। আর টানা তৃতীয়বার বিজয়ী হয়েও আওয়ামী লীগ বিজয়োৎসব করেনি।’
শনিবারের সমাবেশ বিজয় সমাবেশ, উৎসব নয় উল্লেখ করে নেতাকর্মীদের উদ্দেশে হাছান মাহমুদ বলেন, সমাবেশ বর্ণিল, কিন্তু সুশৃঙ্খল হবে। নেত্রীর বক্তব্য শেষ হওয়া পর্যন্ত সবাই উপস্থিত থাকব।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ