ঢাকা, বৃহস্পতিবার 24 January 2019, ১১ মাঘ ১৪২৫, ১৭ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

রাজশাহী নগরীর উন্নয়নে চীনা রাষ্ট্রদূতের আশ্বাস

রাজশাহী : চীনা রাষ্ট্রদূত এইচ.ই ঝং জুকে নগর ভবনে অভ্যর্থনা জানান রাজশাহী সিটি মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন -সংগ্রাম

রাজশাহী অফিস : গতকাল বুধবার রাজশাহী মহানগরীর বিভিন্ন কার্যক্রম পরিদর্শন করেন বাংলাদেশে নিযুক্ত চীনের রাষ্ট্রদূত এইচ.ই ঝং জু। সকাল থেকে তিনি নগরীর বিভিন্ন স্থাপনা পরিদর্শন করেন। পরে বেলা ১২টার দিকে তিনি রাজশাহী সিটি কর্পোরশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। এসময় রাজশাহীর উন্নয়নে সহযোগিতার আশ্বাস দেন নিযুক্ত চীনা রাষ্ট্রদূত।
এসময় চাইনিজ রাষ্ট্রদূত এইচ.ই ঝং জুকে রাজশাহীর বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা ভিডিও’র মাধ্যমে দেখানো হয়। রাসিকের পক্ষ থেকে ভিডিও ও ছবিতে দেখানো হয়, রাজশাহীর এএইচএম কামারুজ্জামান কেন্দ্রীয় উদ্যান ও চিড়িয়াখানা, ভন্দ্রা চত্ত্বর, কামারুজ্জামান চত্ত্বর, পদ্মাপাড়, লালন শাহ পার্ক, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, নগরীর বুধপাড়া এলাকায় ফ্লাইওভার, মেহেরচন্ডি এলাকার ফ্লাইওভার, জাফর ইমাম টেনিস কমপ্লেক্স প্রভৃতি। এর আগে সকালে তিনি বরেন্দ্র গবেষণা জাদুঘর ও পরে চারঘাটের সারদা ক্যাডেট কলেজ পরিদর্শন করেন।
রামেকে কয়েদির মৃত্যু
স্বামী তৃতীয় বিয়ে করায় আভিমানে দ্বিতীয় স্ত্রী আত্মহত্যা করেছেন। বুধবার সকালে রাজশাহী মহানগরীর কাজলা সাঁকোপাড়া মহল্লায় এ ঘটনা ঘটে। এদিকে রাজশাহী মেডিকেলে এক কয়েদির মৃত্যু হয়েছে।
বুধবার পুলিশ সাঁকোপাড়া মহল্লার সিতারা বেগম (২৮) নামে এক গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে। ঘটনার পর থেকে তার স্বামী সেন্টু মিয়ার খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে না। মঙ্গলবার সেন্টু ধুমধাম করে তৃতীয় বিয়ে করেন। সন্ধ্যায় তৃতীয় স্ত্রীকে বাড়িতে নিয়ে আসার পর থেকেই তার দ্বিতীয় স্ত্রী সিতারা কান্নাকাটি করে আসছিলেন। সকালে ঘরে দরজা আটকে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন সিতারা। স্থানীয়ারা আরো জানান, সেন্টুর বংশে একাধিক বিয়ের রেওয়াজ আছে। তাই এলাকাবাসী তাদের ‘বিয়ে পাগল’ বংশ বলে থাকেন। সেন্টুর বাবা আজগর আলী চারটি বিয়ে করেছিলেন। নগরীর মতিহার থানার পুলিশ জানায়, সিতারার লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজের মর্গে পাঠানো হয়।
হাসপাতালে কয়েদির মৃত্যু : রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারের একজন কয়েদির মৃত্যু হয়েছে। রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার বিকেলে তিনি মারা যান। মৃত আব্দুল জব্বার (৪৫) রাজশাহীর পবা বেড়পাড়া এলাকার মৃত জাভেদ আলীর ছেলে। কয়েদি নম্বর-৭৬১৯/৯। তার লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। রামেক হাসপাতাল সূত্র জানায়, গত ১৫ জানুয়ারী রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারে অসুস্থ হয়ে পড়েন আব্দুল জব্বার। এরপর তাকে রামেক হাসপাতালের ৭ নম্বর ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ