ঢাকা, শনিবার 16 March 2019, ২ চৈত্র ১৪২৫, ৮ রজব ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

তিলের খাজা শিল্পে পৃষ্ঠপোষকতা প্রয়োজন

মুখরোচক তিলের খাজা এখন পরিণত হয়েছে ক্ষুদ্র শিল্পে। সারা বছরই তৈরি করা হয় তিলের খাজা। তবে শীত মৌসুমে এর আলাদা কদর রয়েছে। মে/জুন মাস পর্যন্ত চলবে তিলের খাজা মৌসুম। হাজারো ঐতিহ্যের মধ্যে একটি তিলের খাজা। কুষ্টিয়ার কুমারখালীর তিলের খাজার নাম শুনলে জিভে জল আসে না এমন লোকের সংখ্যা কমই আছে। এক সময় শুধু স্থানীয় চাহিদা পূরণের লক্ষ্যে তিলের খাজা তৈরি করা হতো। কালের আবর্তে এর কদর বেড়েছে দেশ জুড়ে। এটি এখন পরিণত হয়েছে একটি খাদ্য শিল্পে। এ ক্ষুদ্র শিল্পপ্রতিষ্ঠান সৃষ্টি করেছে বাড়তি লোকের কর্মসংস্থান। এসব ক্ষুদ্র উদ্যোক্তাদের জন্য ব্যাংক প্রতিষ্ঠান থেকে আর্থিক সুবিধা সৃষ্টি করা হলে এই শিল্পকে আরো এগিয়ে নিয়ে যাওয়া সম্ভব। কিন্তু সে সুবিধা না থাকার কারণে সম্ভাবনা সত্ত্বেও প্রসার ঘটছে না এই ক্ষুদ্র শিল্পের। তিলের খাজা তৈরি শিল্পীদের সাথে কথা বললে তারা জানান, স্বাধীনতার পরে দেশের অনেক কিছু বদলালেও বদলায়নি এ শিল্পের সাথে জড়িত শিল্পীদের ভাগ্য।

 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ