ঢাকা, বৃহস্পতিবার 21 March 2019, ৭ চৈত্র ১৪২৫, ১৩ রজব ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

সড়ক দুর্ঘটনায় প্রতিদিনই মানুষ নিহত হচ্ছে এ নিয়ে সরকারের কোন মাথা ব্যথা নেই -ডা. শফিকুর রহমান

গত ১৯ মার্চ বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসের (বিইউপি) মেধাবী ছাত্র আবরার আহমেদ চৌধুরীসহ সারা দেশে ১৪ জন মানুষ সড়ক দুর্ঘটনায় মর্মান্তিকভাবে নিহত হওয়ার ঘটনায় গভীর শোক ও উদ্বেগ প্রকাশ করে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সেক্রেটারি জেনারেল ডা: শফিকুর রহমান গতকাল বুধবার প্রদত্ত এক বিবৃতিতে বলেন, মেধাবী ছাত্র আবরার আহমেদসহ সারা দেশে ১৪ জন মানুষ মর্মান্তিকভাবে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হওয়ার মর্মান্তিক ঘটনায় আমি গভীর শোক ও উদ্বেগ প্রকাশ করছি। এ ঘটনায় দেশবাসী গভীরভাবে শোকাহত।
তিনি বলেন, সড়ক দুর্ঘটনায় নারী-শিশুসহ প্রতিদিনই মানুষ নিহত হচ্ছে। কিন্তু এ নিয়ে সরকারের কোন মাথা ব্যথা নেই। তাদের লক্ষ্য একটিই বিনা ভোটে নির্বাচনের নামে তামাসা করে ক্ষমতায় টিকে থাকা। জনগণের কল্যাণের কথা তাদের মাথায় নেই। কারণ তারা জনগণের দ্বারা নির্বাচিত নয়। জনগণের নির্বাচিত গণতান্ত্রিক সরকার ক্ষমতায় থাকলে এভাবে প্রতিদিনই সড়ক দুর্ঘটনায় মানুষ নিহত হতে পারত না।
তিনি আরো বলেন, দেশবাসীর নিশ্চয়ই স্মরণ আছে যে, মাত্র ৮ মাস পূর্বে দেশের খুদে শিক্ষার্থীগণ নিরাপদ সড়কের দাবিতে যে অভূতপূর্ণ আন্দোলন গড়ে তুলে ছিল যে আন্দোলনের মুখে সরকার তাদের ৯ দফা দাবি মেনে নিয়ে ছাত্রদের আন্দোলনের সমাপ্তি ঘোষণা করছিল। উল্লেখ্য যে, সেই আন্দোলনে নিহত ছাত্র আবরার আহমেদ চৌধুরীও শামিল ছিল। কিন্তু দীর্ঘ ৮ মাসেও তাদের ৭টি দাবিই অপূর্ণ রয়েছে। ফলে আজও দেশে নিরাপদ সড়ক সৃষ্টি হয়নি। তারই প্রমাণ ১৯ মার্চ একই দিনে সারা দেশে আবরার আহমেদ চৌধুরীসহ ১৪ জন লোক নিহত হওয়ার ঘটনা। এ থেকেই প্রমাণিত হচ্ছে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের চাপের মুখে অবৈধ কর্তৃত্ববাদী সরকার তাদের দাবি মেনে নিলেও তা বাস্তবায়নে মোটেই আন্তরিক নয়। সরকার মিথ্যা প্রতিশ্রুতি দিয়ে দেশের জনগণের সাথে বারবার প্রতারণা করছে। জনবিচ্ছিন্ন সরকারের নিকট ভাল কিছু আশা করা যায় না। সরকার জনগণের কল্যাণের স্বার্থেই ছাত্রদের ন্যায় সংগত দাবি মেনে নিয়ে নিরাপদ সড়ক উপহার দিবে তিনি আশা প্রকাশ করেন। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ