ঢাকা, বুধবার 10 April 2019, ২৭ চৈত্র ১৪২৫, ৩ শাবান ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

আড়াইহাজারে গৃহবধূকে উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করায় বাড়িতে হামলা-ভাংচুর

নারায়ণগঞ্জ সংবাদদাতা : নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারে গৃহবধূকে উত্ত্যক্ত করার প্রতিবাদ করায় বখাটেরা হামলা চালিয়ে বাড়ি ভাংচুর করেছে। এতে বৃদ্ধাসহ আহত হয়েছে ২জন।
৯ এপ্রিল মঙ্গলবার সকাল ৮টার দিকে উপজেলার গোপালদী পৌরসভাধিন দাইরাদী এলাকায় ব্যবসায়ী কামাল ভূইয়ার বাড়িতে এ ঘটনাটি ঘটেছে।
আড়াইহাজার থানা পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানাগেছে, দাইরাদী এলাকার আব্দুর রহমানের ছেলে অটো চালক সুলতান (৩৫) প্রায়ই কামাল ভূইয়ার ছেলে মামুনের স্ত্রী কাজী শাহানাজকে উত্ত্যক্ত করত। গতকাল মঙ্গলবার সকালে বখাটে সুলতান রাস্তায় পুনরায় গৃহবধূ শাহানাজকে উত্ত্যক্ত করে। স্ত্রী ঘটনাটি স্বামী মামুনকে জানালে মামুন বখাটে সুলতানকে গালাগাল করে। এ ঘটনার কিছুক্ষণ পরে সুলতান তার সহযোগী এমান, ইকবাল সহ ১০/১২ সন্ত্রাসী দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে কামাল ভূইয়ার বাড়িতে হামলা চালায়। হামলাকারীরা দ্বিতল ভবনের ১২টি জানালা,দরজা সহ দালানের বিভিন্ন অংশ ভাংচুর করে। তাদের বাঁধা দিতে গেলে বাড়ির ভাড়াটিয়া ফাতেমা বেগম(৮০) ও লাদেন(১৪)কে পিটিয়ে রক্তাক্ত আহত করে। পরে স্থানীয় লোকজন আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেছে।
ঘটনার পর গোপালদী পুলিশ ফাঁড়ির পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়।
গৃহকর্তা কামাল ভুইয়া জানান, তার বাড়িটি রাস্তার পাশে হওয়ায় অটো চালক সুলতান প্রায়ই তার বাড়ির সামনে এসে মহিলাদের উদ্দেশ্যে কুরুচিপূর্ণ কথা বলতো।
তবে অটো চালক সুলতান জানান,মামুন ঐ দিন সকালে তাকে ডেকে নিয়ে মারধর করেন।
গোপালদী তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ উপপরিদর্শক নাসির ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান,ঘটনার পর হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে বলে জানান।
সিদ্ধিরগঞ্জে চলন্ত বাসে স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টা : নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে চলন্ত বাসে স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে ৩ বাস শ্রমিককে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করেছে স্থানীয়রা। গত সোমবার সন্ধ্যায় সিদ্ধিরগঞ্জের ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের শিমরাইল এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটে। গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে নিজ কার্যালয়ে প্রেস ব্রিফিং করে এ তথ্য জানান নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার হারুর অর রশিদ।
তিনি জানান, সোমবার সন্ধ্যায় সিদ্ধিরগঞ্জের মৌচাক বাস স্ট্যান্ড থেকে রজনীগন্ধা পরিবহনের একটি বাসে শিমরাইলের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হয় দশম শ্রেনির স্কুল ছাত্রী। গাড়িটি ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের ডাচবাংলা মোড়ে ইউটার্নের কাছে সকল যাত্রী নেমে যায়। মেয়েটি শিমরাইল মোড়ে নামার জন্য গাড়িতে রয়ে যায়। এ সময় সোলায়মান নামক অন্য একটি গাড়ির হেলপার ওঠে স্কুল ছাত্রীর পেছনে বসে। গাড়িটি শিমরাইল মোড়ের দিকে যাওয়ার সময় সোলায়মান মেয়েটির পাশে বসে মেয়েটির শরীরের স্পর্শকাতর স্থানগুলোতে হাত দেয়। এসময় চালককে গাড়ি থামাতে বললে চালক না থামিয়ে কাঁচপুর ব্রিজের নিচের রাস্তা দিয়ে যেতে থাকে। মেয়েটি চিৎকার শুরু করলে সোলায়মান মুখ চেপে ধরে।
চিৎকার চেচামেচি করলে স্থানীয় লোকজন গাড়িটি আটক করে। পরে গাড়িতে উঠে বিষয়টি শুনে সোলায়মান, ওই গাড়ির হেলপার জয় ও চালক হাবিবুর রহমানকে গণপিটুনি দিয় সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় জানায়। পুলিশ গাড়িসহ ওই তিনজনকে আটক এবং মেয়েটিকে উদ্ধার করে করে থানায় নিয়ে আসে।
দৈনিক যুগের চিন্তার ডিক্লারেশন বাতিলের প্রতিবাদে মানববন্ধন
নারায়নগঞ্জে সর্বাধিক প্রকাশিত পাঠক নন্দিত স্থানীয় দৈনিক যুগের চিন্তা পত্রিকার ডিক্লারেশন বাতিলের প্রতিবাদে মানববন্ধন হয়েছে। মঙ্গলবার সকালে নারায়নগঞ্জ প্রেসক্লাবের সামনে নারায়নগঞ্জ প্রেসক্লাব ও নারয়নগঞ্জ জেলা সাংবাদিক ইউনিয়ন যৌথভাবে এ মানববন্ধনের আয়োজন করে। নারায়নগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি মাহাবুবুর রহমান মাসুমের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন প্রেসক্লাবের সাধারন সম্পাদক হাসানুজ্জামান শামিম, জেলা সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি আব্দুস সালাম, সাধারন সম্পাদক আপজাল হোসেন পন্টিসহ জেলা ও থানা ভিত্তিক বিভিন্ন সাংবাদিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।
মানববন্ধনে বক্তারা বলেন ,সাধারন মানুষের প্রত্যাশা অনুযায়ী দৈনিক যুগের চিন্তা পত্রিকা হুমকি ধামকি উপেক্ষা করে দৃঢ়তার সাথে গডফাদার, সন্ত্রসী, চাদাবাজীসহ বিভিন্ন অনিয়মের বিরুদ্ধে সর্বদা সোচ্চার ছিল। স্বর্থান্বেষী একটি মহল যোগসাজস করে হঠাৎ করে পত্রিকার ডিক্লারেশন বাতিল করে দেয়। যা অবাধ তথ্য প্রবাহের যুগে অত্যন্ত নিন্দিত, ঘৃনিত ও বাক স্বধীনতার পরিপন্থি। অতিদ্রুত পত্রিকার ডিক্লারেশন দিতে হবে নয়তো দাবী আদায়ে আরো কর্মসুচী দেওযা হবে।
মানববন্ধন শেষে পত্রিকার ডিক্লারেশনের দাবী জানিয়ে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে তথ্যমন্ত্রী বরাবর স্মারক লিপি দেওয়া হয়।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ