ঢাকা, বুধবার 23 October 2019, ৮ কার্তিক ১৪২৬, ২৩ সফর ১৪৪১ হিজরী
Online Edition

ময়মনসিংহে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মাদক ব্যবসায়ী নিহত

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: জেলার নান্দাইল উপজেলায় গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) সঙ্গে কতিথ বন্দুকযুদ্ধে হযরত আলী নামে এক মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছে। এ সময় শফিকুল ও সাইদুল নামে দুই পুলিশ সদস্য আহত হয়। নিহত হযরত আলী উপজেলার সাভার গ্রামের আঃ রাজ্জাকের ছেলে বলে জানা গেছে।

অন্যদিকে ঘটনাস্থল থেকে ৩০০ গ্রাম হেরোইন, ২০০ পিস ইয়াবা, একটি পাইপগান ও ৩টি গুলি উদ্ধার করে পুলিশ। শনিবার (৪ মে) মধ্যরাতে উপজেলার সাভার গ্রামে একটি কমিউনিটি ক্লিনিকের পিছনে এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ওসি শাহ মোঃ কামাল আকন্দ  বার্তা  সংস্থা পিবিএকে এই খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, ডিবি পুলিশের ওসি তদন্ত ফারুক আহম্মেদ নান্দাইলে মাদক বিরোধী অভিযান করাকালে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সাভার গ্রামস্থ সাভার কমিউনিটি ক্লিনিকের পিছন এলাকায় কতিপয় অস্ত্রধারী মাদক ব্যবসায়ীরা মাদক ক্রয়-বিক্রয় করছে। এসময় তাদেরকে গ্রেফতারের চেষ্টাকালে মাদক ব্যবসায়ীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে অতর্কিতভাবে গুলি ও ইটপাটকেল ছুরতে থাকে। এতে দুইজন কনষ্টেবল আহত হয়।

পরে পুলিশ আত্মরক্ষার্থে শর্টগানের ফাঁকা গুলি ছুরে। এক পর্যায়ে অস্ত্রধারী মাদক ব্যবসায়ীরা গুলি করতে করতে পালিয়ে যায়। তখন ঘটনাস্থল থেকে হযরত আলী নামে এক মাদক ব্যবসায়ীকে আহত অবস্থায় পড়ে থাকে। এ সময় তার দেহ তল্লাশী করে তিনশত গ্রাম হেরোইন, ২০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, একটি পাইপগান ও তিন রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়।

তিনি আরও বলেন, আহত মাদক ব্যবসায়ীকে নান্দাইল থানা পুলিশের সহায়তায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ (মমেক) হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য প্রেরন করলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। তার বিরুদ্ধে নান্দাইল থানায় মাদকসহ ১০ টির অধিক মামলা রয়েছে। অপরদিকে আহত পুলিশ সদস্যদের উদ্ধার করে পুলিশলাইন্স হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়। তবে বন্দুকযুদ্ধ চলাকালে পুলিশ ১৫ রাউন্ড সটগানের গুলি ছুরে বলেও পুলিশের এই কর্মকর্তা জানিয়েছেন।

 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ